ঢাকা ০৬:৪৫ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২৪ জুলাই ২০২৪, ৯ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম :
Logo শাবি ক্যাম্পাসে আন্দোলনকারীদের ছড়ানো গুজবে সয়লাব Logo সিলেট-সুনামগঞ্জ মহাসড়কে আন্দোলনকারীরা পুলিশের উপর হামলা চালালে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে Logo জবিতে আজীবন ছাত্ররাজনীতি নিষিদ্ধ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ Logo শাবিতে হল প্রশাসনকে ভয়-ভীতি দেখিয়ে নোটিসে জোর পূর্বক সাইন আদায় Logo এবার সামনে আসছে ছাত্রলীগ কর্তৃক আন্দোলনকারীদের মারধরের আরো ঘটনা Logo আবাসিক হল ছাড়ছে শাবি শিক্ষার্থীরা Logo নিরাপত্তার স্বার্থে শাবি শিক্ষার্থীদের আইডিকার্ড সাথে রাখার আহবান বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের Logo জনস্বাস্থ্যের প্রধান সাধুর যত অসাধু কর্ম: দুর্নীতি ও অর্থ পাচারের অভিযোগ! Logo বিআইডব্লিউটিএ বন্দর শাখা যুগ্ম পরিচালক আলমগীরের দুর্নীতি ও ঘুষ বাণিজ্য  Logo রাজশাহীতে এটিএন বাংলার সাংবাদিক সুজাউদ্দিন ছোটনকে হয়রানিমূলক মামলায় বএিমইউজরে নিন্দা ও প্রতিবাদ




‘সি’ ইউনিটের পরীক্ষায়ও জবি এলাকায় তীব্র যানজট: ভোগান্তিতে শিক্ষার্থী-অভিভাবকরা!

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৪:২৭:৫৭ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৭ মে ২০২৩ ১০১ বার পড়া হয়েছে

‘সি’ ইউনিটের পরীক্ষায়ও জবি এলাকায় তীব্র যানজট!

জবি প্রতিনিধি: গুচ্ছভুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর সি (বাণিজ্য) ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায়ও জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রে আসা শিক্ষার্থী-অভিভাবকরা তীব্র যানজটে ভোগান্তিতে পড়েছেন। এদিনও বিশ্ববিদ্যালয় এলাকা জুড়ে সৃষ্টি হওয়া তীব্র যানজটের ফলে কেন্দ্রে প্রবেশের ক্ষেত্রে হিমশিম খান শিক্ষার্থীরা।

সরেজমিনে দেখা যায়, শনিবার সকাল থেকেই ভর্তি পরীক্ষা কেন্দ্র করে পুরান ঢাকার ভিক্টোরিয়া পার্ক ও বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে আসতে থাকেন ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা। সময় বাড়ার সাথে সাথে তাদের উপস্থিতি বাড়ে। তবে এদিনও সদরঘাটগামী বাস,মিনিবাস রিকশা, মোটরসাইকেল ও অন্যান্য যানবাহনের চলাচল বাড়তে থাকে। বাহাদুর শাহ পার্ক ও বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে সংকীর্ণ জায়গা জুড়ে যানজট বেড়ে যায়।

‘সি’ ইউনিটের পরীক্ষায়ও জবি এলাকায় তীব্র যানজট: ভোগান্তিতে শিক্ষার্থী-অভিভাবকরা!

এসময় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ও দ্বিতীয় গেইট দিয়ে ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীদের বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রবেশের ক্ষেত্রে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি হয়। এসময় সদরঘাটমুখী ও সদরঘাট থেকে রাজধানীর বিভিন্ন স্থানের উদ্দেশ্যে ছেড়ে যাওয়া যাত্রীবাহী বাস,লেগুনা, মিনি ট্রাক এবং রিক্সার দীর্ঘ সারি তৈরী হয়। এসময় ট্রাফিক পুলিশ সদস্যরাই যানজট নিয়ন্ত্রণে হিমশিম খায়।

জানতে চাইলে দায়িত্বরত এক ট্রাফিক পুলিশ সদস্য বলেন, আমরা যানজট নিরসনে সচেষ্ট আছি। তবে সময় বাড়ার সাথে সাথে শিক্ষার্থী-অভিভাবক এবং যানজটের পরিমাণও বেড়ে যাচ্ছে। আমরা কেন্দ্রের সামনে যানজটের চাপ কমানোর চেষ্টা করছি।

কয়েকজন ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীর অভিভাবক বলেন, প্রচন্ড রোদ গরমের মধ্যে আবার তীব্র যানজট৷ মোটের উপর একটু ভালোভাবে দাঁড়ানোর সুযোগ নেই৷ কর্তৃপক্ষের উচিত ছিল পরীক্ষাকে কেন্দ্র করে সাময়িক সময়ের জন্য এই রোডের যানবাহন চলাচল বন্ধ করা।

এক ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থী বলেন, যানজট ঠেলে এভাবে কেন্দ্রে প্রবেশ করা রীতিমতো চ্যালেঞ্জিং। তার উপর প্রচন্ড রোদ৷ যানজটে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি হয়েছে।

এ বিষয়ে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. মোস্তফা কামাল বলেন,বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় যানজট নিয়ন্ত্রণে আমরা ডিএমপির ট্রাফিক বিভাগে আবারও চিঠি পাঠিয়েছিলাম। বিষয়টি নিয়ে পুলিশের যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়ার কথা।

প্রসঙ্গত, গত ২০মে গুচ্ছের বি (মানবিক) ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায়ও জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় তীব্র যানজটে চরম ভোগান্তিতে পড়েন শিক্ষার্থী-অভিভাবকরা। গুচ্ছভুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর সি ইউনিটের পরীক্ষায় জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রে ১২ হাজার ৮৪৩ জন শিক্ষার্থীর আসন বিন্যাস সাজানো হয়। বেলা ১২টায় শুরু হয়ে ১টা পর্যন্ত চলে পরীক্ষা।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :




‘সি’ ইউনিটের পরীক্ষায়ও জবি এলাকায় তীব্র যানজট: ভোগান্তিতে শিক্ষার্থী-অভিভাবকরা!

আপডেট সময় : ০৪:২৭:৫৭ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৭ মে ২০২৩

‘সি’ ইউনিটের পরীক্ষায়ও জবি এলাকায় তীব্র যানজট!

জবি প্রতিনিধি: গুচ্ছভুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর সি (বাণিজ্য) ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায়ও জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রে আসা শিক্ষার্থী-অভিভাবকরা তীব্র যানজটে ভোগান্তিতে পড়েছেন। এদিনও বিশ্ববিদ্যালয় এলাকা জুড়ে সৃষ্টি হওয়া তীব্র যানজটের ফলে কেন্দ্রে প্রবেশের ক্ষেত্রে হিমশিম খান শিক্ষার্থীরা।

সরেজমিনে দেখা যায়, শনিবার সকাল থেকেই ভর্তি পরীক্ষা কেন্দ্র করে পুরান ঢাকার ভিক্টোরিয়া পার্ক ও বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে আসতে থাকেন ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা। সময় বাড়ার সাথে সাথে তাদের উপস্থিতি বাড়ে। তবে এদিনও সদরঘাটগামী বাস,মিনিবাস রিকশা, মোটরসাইকেল ও অন্যান্য যানবাহনের চলাচল বাড়তে থাকে। বাহাদুর শাহ পার্ক ও বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে সংকীর্ণ জায়গা জুড়ে যানজট বেড়ে যায়।

‘সি’ ইউনিটের পরীক্ষায়ও জবি এলাকায় তীব্র যানজট: ভোগান্তিতে শিক্ষার্থী-অভিভাবকরা!

এসময় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ও দ্বিতীয় গেইট দিয়ে ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীদের বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রবেশের ক্ষেত্রে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি হয়। এসময় সদরঘাটমুখী ও সদরঘাট থেকে রাজধানীর বিভিন্ন স্থানের উদ্দেশ্যে ছেড়ে যাওয়া যাত্রীবাহী বাস,লেগুনা, মিনি ট্রাক এবং রিক্সার দীর্ঘ সারি তৈরী হয়। এসময় ট্রাফিক পুলিশ সদস্যরাই যানজট নিয়ন্ত্রণে হিমশিম খায়।

জানতে চাইলে দায়িত্বরত এক ট্রাফিক পুলিশ সদস্য বলেন, আমরা যানজট নিরসনে সচেষ্ট আছি। তবে সময় বাড়ার সাথে সাথে শিক্ষার্থী-অভিভাবক এবং যানজটের পরিমাণও বেড়ে যাচ্ছে। আমরা কেন্দ্রের সামনে যানজটের চাপ কমানোর চেষ্টা করছি।

কয়েকজন ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীর অভিভাবক বলেন, প্রচন্ড রোদ গরমের মধ্যে আবার তীব্র যানজট৷ মোটের উপর একটু ভালোভাবে দাঁড়ানোর সুযোগ নেই৷ কর্তৃপক্ষের উচিত ছিল পরীক্ষাকে কেন্দ্র করে সাময়িক সময়ের জন্য এই রোডের যানবাহন চলাচল বন্ধ করা।

এক ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থী বলেন, যানজট ঠেলে এভাবে কেন্দ্রে প্রবেশ করা রীতিমতো চ্যালেঞ্জিং। তার উপর প্রচন্ড রোদ৷ যানজটে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি হয়েছে।

এ বিষয়ে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. মোস্তফা কামাল বলেন,বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় যানজট নিয়ন্ত্রণে আমরা ডিএমপির ট্রাফিক বিভাগে আবারও চিঠি পাঠিয়েছিলাম। বিষয়টি নিয়ে পুলিশের যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়ার কথা।

প্রসঙ্গত, গত ২০মে গুচ্ছের বি (মানবিক) ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায়ও জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় তীব্র যানজটে চরম ভোগান্তিতে পড়েন শিক্ষার্থী-অভিভাবকরা। গুচ্ছভুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর সি ইউনিটের পরীক্ষায় জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রে ১২ হাজার ৮৪৩ জন শিক্ষার্থীর আসন বিন্যাস সাজানো হয়। বেলা ১২টায় শুরু হয়ে ১টা পর্যন্ত চলে পরীক্ষা।