ঢাকা ০১:৫০ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪, ৮ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম :




জেলেদের চাল বিতরণে মেহেন্দিগঞ্জ ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অনিয়মের অভিযোগ

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৭:১০:২১ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৫ এপ্রিল ২০২০ ১৬৫ বার পড়া হয়েছে

বরিশাল ব্যুরো অফিস; মেহেন্দিগঞ্জ উপজেলার মেহেন্দিগঞ্জ সদর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোস্তাফিজুর রহমান রিপন এর বিরুদ্ধে জেলে পূনর্বাসন চাল বিতরণে অনিয়ম-দুর্নীতির অভিযোগ পাওয়া গেছে।

সরকার নির্ধারিত পরিমাণের চেয়ে চাল কম দেয়া, অন্য পেশাজীবীদেরও চাল দেয়াসহ নানা অভিযোগে জেলেদের মধ্যে দেখা দিয়েছে ক্ষোভ ও অসন্তোষ । অভিযুক্ত চেয়ারম্যান অবশ্য বলছেন, জেলেদের সংখ্যা বেশি হওয়ায় সমন্বয় করার জন্য কম দেয়া হয়েছে চাল। জেলেরা অভিযোগ করে বলেন, ২ কিস্তির চাল ৮০ কেজি করে মাথাপিছু দেওয়ার নিয়ম থাকলেও দেয়া হচ্ছে মাত্র ৩০কেজি।
জনমনে প্রশ্ন জেলেদের যাদের কার্ড আছে তাদের দেয়া হচ্ছে ৩০ কেজি অন্য যাদের কার্ড নাই এরকম অসহায়দের দেয়া হচ্ছে ১০ কেজি, তাহলে বাকি প্রতি ৪০ কেজি চাল কোথায় যায়?
এদিকে, ত্রান তহবিল থেকে কোন ধরনের ত্রান না দেওয়ার অভিযোগ রয়েছে এই চেয়ারম্যান মোস্তাফিজুর রহমান রিপন এর বিরুদ্ধে।

সরেজমিনে ইউনিয়ন পরিষদে গিয়ে দেখা যায়, নানা অনিয়ম আর অব্যবস্থাপনার মধ্যে চাল দেওয়া হয়, নেই টেগ অফিসার, উপস্থিতি ছিল না মেম্বারদের। মাথাপিছু ৮০কেজির স্থলে ৩০কেজি দেওয়া হচ্ছে, এক জনের চাল সংগ্রহ করে আরেকজন।
নামপ্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক ইউপি সদস্য বলেন চাল বিতরণ করার বিষয়ে তাদের কিছুই বলেনি চেয়ারম্যান। পরিমাপে কম দিয়ে মাথাপিছু প্রায় ৪০কেজি চাল চেয়ারম্যান আত্মসাৎ করছেন।
সাংবদিকদের সামনে অভিযোগকারী অনেকে চাল মাপ দেয় এবং কয়েকজনের চাল পরিমাপ করে সত্যতা পাওয়া যায় ।
চাল পরিমাণে কম দেয়াসহ সংশ্লিষ্ট বিষয়ে জানতে চেয়ে ইউপি চেয়ারম্যান রিপনের এর সাথে যোগাযোগ করার চেষ্টা করলে তিনি ফোন রিসিভ করেননি।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :




জেলেদের চাল বিতরণে মেহেন্দিগঞ্জ ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অনিয়মের অভিযোগ

আপডেট সময় : ০৭:১০:২১ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৫ এপ্রিল ২০২০

বরিশাল ব্যুরো অফিস; মেহেন্দিগঞ্জ উপজেলার মেহেন্দিগঞ্জ সদর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোস্তাফিজুর রহমান রিপন এর বিরুদ্ধে জেলে পূনর্বাসন চাল বিতরণে অনিয়ম-দুর্নীতির অভিযোগ পাওয়া গেছে।

সরকার নির্ধারিত পরিমাণের চেয়ে চাল কম দেয়া, অন্য পেশাজীবীদেরও চাল দেয়াসহ নানা অভিযোগে জেলেদের মধ্যে দেখা দিয়েছে ক্ষোভ ও অসন্তোষ । অভিযুক্ত চেয়ারম্যান অবশ্য বলছেন, জেলেদের সংখ্যা বেশি হওয়ায় সমন্বয় করার জন্য কম দেয়া হয়েছে চাল। জেলেরা অভিযোগ করে বলেন, ২ কিস্তির চাল ৮০ কেজি করে মাথাপিছু দেওয়ার নিয়ম থাকলেও দেয়া হচ্ছে মাত্র ৩০কেজি।
জনমনে প্রশ্ন জেলেদের যাদের কার্ড আছে তাদের দেয়া হচ্ছে ৩০ কেজি অন্য যাদের কার্ড নাই এরকম অসহায়দের দেয়া হচ্ছে ১০ কেজি, তাহলে বাকি প্রতি ৪০ কেজি চাল কোথায় যায়?
এদিকে, ত্রান তহবিল থেকে কোন ধরনের ত্রান না দেওয়ার অভিযোগ রয়েছে এই চেয়ারম্যান মোস্তাফিজুর রহমান রিপন এর বিরুদ্ধে।

সরেজমিনে ইউনিয়ন পরিষদে গিয়ে দেখা যায়, নানা অনিয়ম আর অব্যবস্থাপনার মধ্যে চাল দেওয়া হয়, নেই টেগ অফিসার, উপস্থিতি ছিল না মেম্বারদের। মাথাপিছু ৮০কেজির স্থলে ৩০কেজি দেওয়া হচ্ছে, এক জনের চাল সংগ্রহ করে আরেকজন।
নামপ্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক ইউপি সদস্য বলেন চাল বিতরণ করার বিষয়ে তাদের কিছুই বলেনি চেয়ারম্যান। পরিমাপে কম দিয়ে মাথাপিছু প্রায় ৪০কেজি চাল চেয়ারম্যান আত্মসাৎ করছেন।
সাংবদিকদের সামনে অভিযোগকারী অনেকে চাল মাপ দেয় এবং কয়েকজনের চাল পরিমাপ করে সত্যতা পাওয়া যায় ।
চাল পরিমাণে কম দেয়াসহ সংশ্লিষ্ট বিষয়ে জানতে চেয়ে ইউপি চেয়ারম্যান রিপনের এর সাথে যোগাযোগ করার চেষ্টা করলে তিনি ফোন রিসিভ করেননি।