ঢাকা ০৩:৫৫ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪, ৬ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম :




গরু ব্যবসায়ীকে হত্যা করে ১৪ লাখ টাকা লুট

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৫:০৫:০৪ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৯ জুন ২০২৩ ১০৫ বার পড়া হয়েছে

গরু ব্যবসায়ীকে হত্যা করে ১৪ লাখ টাকা লুট
নাটোর প্রতিনিধি:

রাজধানীতে গরু বিক্রি করে বাড়ি ফেরার পথে এক গরু ব্যবসায়ীকে হত্যা করে নাটোরের বড়াইগ্রামে ট্রাক থেকে ফেলে দিয়েছে ডাকাতদল। এ ঘটনায় অপর একজন নিখোঁজ এবং তিনজন জখম হয়েছেন। বুধবার (২৮ জুন) রাতে শহিদুল নামে হতভাগা গরু ব্যবসায়ীর মরদেহ উদ্ধার করা হয়। জখম হওয়া দুজনকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

নিহত শহিদুল বগুড়া জেলার সারিয়াকান্দি উপজেলার বাসিন্দা বলে জানায় পুলিশ।

বড়াইগ্রাম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু সিদ্দিক জানান, ঢাকার আফতাব নগর হাটে গরু বিক্রি করে বুধবার রাতে বগুড়ায় ফেরার জন্য একটি ট্রাকে ওঠেন ৫ ব্যবসায়ী। চন্দ্রা এলাকা পার হওয়ার পরই ট্রাকে থাকা ডাকাতদল অস্ত্রের মুখে গরু ব্যবসায়ীদের হাত, পা ও মুখ বেঁধে ফেলে। এরপর তাদের কাছে থাকা গরু বিক্রির সাড়ে ১৪ লাখ টাকা লুটে নেয়।

ওসি আরও জানান, ব্যবসায়ীদের ট্রাকে আটকে রেখে ২৪ ঘণ্টা ধরে নির্যাতন চালানোয় শহিদুল ইসলাম নামে একজনের মৃত্যু হয়। নির্যাতনে গুরুতর জখম একজনকে বনপাড়া-হাটিকুমরুল মহাসড়কের কোনো এক স্থানে ফেলে দেয় ডাকাতরা।

তিনি বলেন, বুধবার রাত ১১ টার দিকে ডাকাতরা নিহত শহিদুল এবং অন্য তিন ব্যবসায়ীকে নাটোরের বড়াইগ্রাম উপজেলার সুতারপাড় এলাকায় ফেলে দিয়ে ট্রাক নিয়ে পালিয়ে যায়। পরে খবর পেয়ে হতাহতদের উদ্ধার করা হয়।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :




গরু ব্যবসায়ীকে হত্যা করে ১৪ লাখ টাকা লুট

আপডেট সময় : ০৫:০৫:০৪ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৯ জুন ২০২৩

গরু ব্যবসায়ীকে হত্যা করে ১৪ লাখ টাকা লুট
নাটোর প্রতিনিধি:

রাজধানীতে গরু বিক্রি করে বাড়ি ফেরার পথে এক গরু ব্যবসায়ীকে হত্যা করে নাটোরের বড়াইগ্রামে ট্রাক থেকে ফেলে দিয়েছে ডাকাতদল। এ ঘটনায় অপর একজন নিখোঁজ এবং তিনজন জখম হয়েছেন। বুধবার (২৮ জুন) রাতে শহিদুল নামে হতভাগা গরু ব্যবসায়ীর মরদেহ উদ্ধার করা হয়। জখম হওয়া দুজনকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

নিহত শহিদুল বগুড়া জেলার সারিয়াকান্দি উপজেলার বাসিন্দা বলে জানায় পুলিশ।

বড়াইগ্রাম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু সিদ্দিক জানান, ঢাকার আফতাব নগর হাটে গরু বিক্রি করে বুধবার রাতে বগুড়ায় ফেরার জন্য একটি ট্রাকে ওঠেন ৫ ব্যবসায়ী। চন্দ্রা এলাকা পার হওয়ার পরই ট্রাকে থাকা ডাকাতদল অস্ত্রের মুখে গরু ব্যবসায়ীদের হাত, পা ও মুখ বেঁধে ফেলে। এরপর তাদের কাছে থাকা গরু বিক্রির সাড়ে ১৪ লাখ টাকা লুটে নেয়।

ওসি আরও জানান, ব্যবসায়ীদের ট্রাকে আটকে রেখে ২৪ ঘণ্টা ধরে নির্যাতন চালানোয় শহিদুল ইসলাম নামে একজনের মৃত্যু হয়। নির্যাতনে গুরুতর জখম একজনকে বনপাড়া-হাটিকুমরুল মহাসড়কের কোনো এক স্থানে ফেলে দেয় ডাকাতরা।

তিনি বলেন, বুধবার রাত ১১ টার দিকে ডাকাতরা নিহত শহিদুল এবং অন্য তিন ব্যবসায়ীকে নাটোরের বড়াইগ্রাম উপজেলার সুতারপাড় এলাকায় ফেলে দিয়ে ট্রাক নিয়ে পালিয়ে যায়। পরে খবর পেয়ে হতাহতদের উদ্ধার করা হয়।