ঢাকা ০৯:৪৯ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২২, ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম :




২০১৮ সালে স্মার্টফোনের সেরা ১০ ট্রেন্ড

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ১১:৪৫:৫২ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৭ ডিসেম্বর ২০১৮ ১৫ বার পড়া হয়েছে

 

 

তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্কঃ ২০১৮ সালে নিত্যনতুন ফিচারে বাজারে স্মার্টফোন এসেছে। এর মধ্যে কিছু ফিচার ছিল একদমই নতুন। এই বছর জনপ্রিয় হয়েছে ডিসপ্লের উপরে নচ ও ফেস আনলক ফিচার। আগে প্রিমিয়াম স্মার্টফোনে এই ফিচার ব্যবহার হলেও ২০১৮ সালে বাজেট স্মার্টফোনে ছিল এই ফিচার। এ ছাড়া স্মার্টফোনে এসেছে ডিসপ্লের নিচে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর। এক নজরে ২০১৮ সালের স্মার্টফোনের সেরা ১০টি সম্পর্কে জেনে নিন।

১. ডিসপ্লের ওপরে নচ

প্রথম স্মার্টফোনে অল বডি ডিসপ্লে নিয়ে হাজির হয়েছিল মি মিক্স এবং স্যামসাং গ্যালাক্সি এস এইট। এ দুটি ফোন ভবিষ্যতে স্মার্টফোন ডিসপ্লের সংজ্ঞা বদলে দিয়েছে। এর পরে প্রথম ডিসপ্লের ওপরে নচসহ ফুলস্ক্রিন ডিসপ্লে নিজে হাজির হয়েছিল আইফোন এক্স, ভিভো এবং অপো। পপ আপ ও স্লাইডিং ক্যামেরা ডিজাইন বাজারে এসেছে এ বছরই। কিন্তু প্রায় সব ফোনের ডিসপ্লের ওপরই এই ছোট্ট একটি নচ দেখা গেছে। এই নচের মধ্যেই ছিল ইয়ারপিস, ফ্রন্ট ক্যামেরা আর প্রয়োজনীয় সব সেন্সর।

২. বাজেট ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোন

আগে ফ্ল্যাগশিপ ফোন কিনতে ৪০ থেকে ৫০ হাজার টাকারও বেশি খরচ করতে হতো। ২০১৮ সালে ফ্লাগশিপ ফোনের দাম কমেছে অনেকাংশে। এখন ৩০ থেকে ৪০ হাজার টাকায় পাওয়া যাচ্ছে বিভিন্ন প্রযুক্তির ফ্লাগশিপ ফোন।

৩. আর্টিফিসিয়াল ইন্টিলিজেন্স

লেটেস্ট হার্ডওয়্যারের সঙ্গে ২০১৮ সালে স্মার্টফোনের হট টপিক ছিল আর্টিফিশিয়াল ইন্টিলিজেন্স। এই বছর বাজারে আসা প্রায় সব চিপসেটেই আর্টিফিসিয়াল ইন্টিলিজেন্স প্রসেসিংয়ের জন্য আলাদা নিউরাল প্রসেসিং ইঞ্জিন ব্যবহার হতে দেখা গেছে। লেটেস্ট কিরিন ৯৮০, স্ন্যাপড্রাগন ৮৫৫ চিপসেটে এই মডিউল ব্যবহার হয়েছে।

৫. গ্লাস ব্যাক

আইফোন এক্স, স্যামসাং গ্যালাক্সি এস সিরিজের স্মার্টফোনের জনপ্রিয়তার পরে মেটাল থেকে ফোনের পিছনে গ্লাসের ব্যবহার শুরু হয়েছে। হাই অ্যান্ড স্মার্টফোনের সঙ্গে নকিয়া ৫.১ প্লাস, হনার এইট এক্স এবং রিয়েল মি সি ওয়ান মডেলের ফোনের মতো বাজেট স্মার্টফোনে গ্লাস ব্যাক দেখা গেছে। ওয়্যারলেস চার্জিং ও ভালো অ্যান্টেনা রিসেপশনের জন্য ফোনের পেছনে গ্লাসের ব্যবহার বেড়েছে। এ ছাড়াও এই ডিজাইন প্রিমিয়াম ফিল দিয়েছে স্মার্টফোনকে।

৬. স্টক অ্যানড্রয়েড

এতদিন মটোরোলা, নেক্সাস ও পিক্সেল স্মার্টফোনে স্টক অ্যানড্রয়েড দেখা যেত। বেশ কয়েক বছর হলো গুগলের অ্যানড্রয়েড ওয়ান প্রোগ্রাম সামনে এসেছে। এই প্রোগ্রামের অধীনে স্মার্টফোনের হার্ডওয়্যারের দায়িত্বে থাকে বিভিন্ন স্মার্টফোন প্রস্তুতকারী কোম্পানি, কিন্তু সফটওয়্যার ডেভেলপ করে গুগল নিজে। ২০১৮ সালে হঠাৎ জনপ্রিয়তার শীর্ষে পৌঁছায় গুগল এর অ্যানড্রয়েড ওয়ান প্রোগ্রাম।

৭. ডিসপ্লের নিচে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর

বেজেল লেস ডিসপ্লের স্মার্টফোন তৈরির জন্য ২০১৮ সালে একাধিক স্মার্টফোনে ডিসপ্লে নিচে পৌঁছেছে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর। ২০১৮ সালে সব স্মার্টফোনে অপ্টিক্যাল ইন ডিসপ্লে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর দেখা গেছে। প্রধানত প্রিমিয়াম স্মার্টফোনে এখনো এই ফিচার দেখা গেছে।

৮. ইউএসবি টাইপ সি পোর্ট

২০১৪ সাল থেকে স্মার্টফোনে ইউএসবি টাইপ-সি পোর্ট ব্যবহার শুরু হলেও ২০১৮ সালে তা জনপ্রিয়তার শীর্ষে পৌঁছেছে। আগে হাতে গোনা কিছু ফ্ল্যাগশিপ ফোনে এই পোর্ট ব্যবহার হলেও এই বছরেই একের পর এক বাজেট ও মিডরেঞ্জ স্মার্টফোন ইউএসবি টাইপ সি পোর্ট ব্যবহার শুরু হয়।

৯. ফাস্ট চার্জিং

এই বছর একাধিক বাজেট ও মিডরেঞ্জ ফোনে ফাস্ট চার্জিং পৌঁছাতে শুরু করে। আগে শুধু প্রিমিয়াম স্মার্টফোনেই এই ফিচার দেখা যেত। কোয়ালকম কুইক চার্জ প্রযুক্তি ছাড়াও ২০১৮ সালে সামনে এসেছে ভিওওসি সুপার ফাস্ট চার্জিং টেকনোলজি। এই টেকনোলজিতে মাত্র ৩০ মিনিটে অপোর স্মার্টফোন ০ থেকে ৭৫ শতাংশ চার্জ হয়। এ ছাড়াও সম্প্রতি ওয়ান প্লাস সামনে এনেছে র‌্যাপ চার্জিং টেকনোলজি। এই টেকনোলজিতে ওয়ানপ্লাস সিক্সটি ম্যালারেন এডিশন স্মার্টফোন ০ থেকে ৫০ শতাংশ চার্জ হতে সময় লাগে মাত্র ২০ মিনিট।

১০. একাধিক ক্যামেরার ব্যবহার

২০১৮ সালে বাজারে আসা প্রায় সব স্মার্টফোনে অন্তত দুটি রিয়ার ক্যামেরা দেখা গেছে। বছরের শুরুতে অবমুক্ত হওয়া হুয়াওয়ে পি ২০ প্রো ফোনে প্রথম তিনটি ক্যামেরা দেখা যায়। এরপর হুয়াওয়ে মেট ২০ প্রো, স্যামসাং গ্যালাক্সি এস সেভেন (২০১৮), অপো আর১৭ প্রো ফোনের পিছনেও তিনটি করে ক্যামেরা দেখা গেছে। যদিও এসব ফোনকে ছাপিয়ে ২০১৮ সালে চারটি রিয়ার ক্যামেরাসহ বাজারে এসেছে স্যামসাং গ্যালাক্সি এ নাইন (২০১৮)।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :




২০১৮ সালে স্মার্টফোনের সেরা ১০ ট্রেন্ড

আপডেট সময় : ১১:৪৫:৫২ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৭ ডিসেম্বর ২০১৮

 

 

তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্কঃ ২০১৮ সালে নিত্যনতুন ফিচারে বাজারে স্মার্টফোন এসেছে। এর মধ্যে কিছু ফিচার ছিল একদমই নতুন। এই বছর জনপ্রিয় হয়েছে ডিসপ্লের উপরে নচ ও ফেস আনলক ফিচার। আগে প্রিমিয়াম স্মার্টফোনে এই ফিচার ব্যবহার হলেও ২০১৮ সালে বাজেট স্মার্টফোনে ছিল এই ফিচার। এ ছাড়া স্মার্টফোনে এসেছে ডিসপ্লের নিচে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর। এক নজরে ২০১৮ সালের স্মার্টফোনের সেরা ১০টি সম্পর্কে জেনে নিন।

১. ডিসপ্লের ওপরে নচ

প্রথম স্মার্টফোনে অল বডি ডিসপ্লে নিয়ে হাজির হয়েছিল মি মিক্স এবং স্যামসাং গ্যালাক্সি এস এইট। এ দুটি ফোন ভবিষ্যতে স্মার্টফোন ডিসপ্লের সংজ্ঞা বদলে দিয়েছে। এর পরে প্রথম ডিসপ্লের ওপরে নচসহ ফুলস্ক্রিন ডিসপ্লে নিজে হাজির হয়েছিল আইফোন এক্স, ভিভো এবং অপো। পপ আপ ও স্লাইডিং ক্যামেরা ডিজাইন বাজারে এসেছে এ বছরই। কিন্তু প্রায় সব ফোনের ডিসপ্লের ওপরই এই ছোট্ট একটি নচ দেখা গেছে। এই নচের মধ্যেই ছিল ইয়ারপিস, ফ্রন্ট ক্যামেরা আর প্রয়োজনীয় সব সেন্সর।

২. বাজেট ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোন

আগে ফ্ল্যাগশিপ ফোন কিনতে ৪০ থেকে ৫০ হাজার টাকারও বেশি খরচ করতে হতো। ২০১৮ সালে ফ্লাগশিপ ফোনের দাম কমেছে অনেকাংশে। এখন ৩০ থেকে ৪০ হাজার টাকায় পাওয়া যাচ্ছে বিভিন্ন প্রযুক্তির ফ্লাগশিপ ফোন।

৩. আর্টিফিসিয়াল ইন্টিলিজেন্স

লেটেস্ট হার্ডওয়্যারের সঙ্গে ২০১৮ সালে স্মার্টফোনের হট টপিক ছিল আর্টিফিশিয়াল ইন্টিলিজেন্স। এই বছর বাজারে আসা প্রায় সব চিপসেটেই আর্টিফিসিয়াল ইন্টিলিজেন্স প্রসেসিংয়ের জন্য আলাদা নিউরাল প্রসেসিং ইঞ্জিন ব্যবহার হতে দেখা গেছে। লেটেস্ট কিরিন ৯৮০, স্ন্যাপড্রাগন ৮৫৫ চিপসেটে এই মডিউল ব্যবহার হয়েছে।

৫. গ্লাস ব্যাক

আইফোন এক্স, স্যামসাং গ্যালাক্সি এস সিরিজের স্মার্টফোনের জনপ্রিয়তার পরে মেটাল থেকে ফোনের পিছনে গ্লাসের ব্যবহার শুরু হয়েছে। হাই অ্যান্ড স্মার্টফোনের সঙ্গে নকিয়া ৫.১ প্লাস, হনার এইট এক্স এবং রিয়েল মি সি ওয়ান মডেলের ফোনের মতো বাজেট স্মার্টফোনে গ্লাস ব্যাক দেখা গেছে। ওয়্যারলেস চার্জিং ও ভালো অ্যান্টেনা রিসেপশনের জন্য ফোনের পেছনে গ্লাসের ব্যবহার বেড়েছে। এ ছাড়াও এই ডিজাইন প্রিমিয়াম ফিল দিয়েছে স্মার্টফোনকে।

৬. স্টক অ্যানড্রয়েড

এতদিন মটোরোলা, নেক্সাস ও পিক্সেল স্মার্টফোনে স্টক অ্যানড্রয়েড দেখা যেত। বেশ কয়েক বছর হলো গুগলের অ্যানড্রয়েড ওয়ান প্রোগ্রাম সামনে এসেছে। এই প্রোগ্রামের অধীনে স্মার্টফোনের হার্ডওয়্যারের দায়িত্বে থাকে বিভিন্ন স্মার্টফোন প্রস্তুতকারী কোম্পানি, কিন্তু সফটওয়্যার ডেভেলপ করে গুগল নিজে। ২০১৮ সালে হঠাৎ জনপ্রিয়তার শীর্ষে পৌঁছায় গুগল এর অ্যানড্রয়েড ওয়ান প্রোগ্রাম।

৭. ডিসপ্লের নিচে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর

বেজেল লেস ডিসপ্লের স্মার্টফোন তৈরির জন্য ২০১৮ সালে একাধিক স্মার্টফোনে ডিসপ্লে নিচে পৌঁছেছে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর। ২০১৮ সালে সব স্মার্টফোনে অপ্টিক্যাল ইন ডিসপ্লে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর দেখা গেছে। প্রধানত প্রিমিয়াম স্মার্টফোনে এখনো এই ফিচার দেখা গেছে।

৮. ইউএসবি টাইপ সি পোর্ট

২০১৪ সাল থেকে স্মার্টফোনে ইউএসবি টাইপ-সি পোর্ট ব্যবহার শুরু হলেও ২০১৮ সালে তা জনপ্রিয়তার শীর্ষে পৌঁছেছে। আগে হাতে গোনা কিছু ফ্ল্যাগশিপ ফোনে এই পোর্ট ব্যবহার হলেও এই বছরেই একের পর এক বাজেট ও মিডরেঞ্জ স্মার্টফোন ইউএসবি টাইপ সি পোর্ট ব্যবহার শুরু হয়।

৯. ফাস্ট চার্জিং

এই বছর একাধিক বাজেট ও মিডরেঞ্জ ফোনে ফাস্ট চার্জিং পৌঁছাতে শুরু করে। আগে শুধু প্রিমিয়াম স্মার্টফোনেই এই ফিচার দেখা যেত। কোয়ালকম কুইক চার্জ প্রযুক্তি ছাড়াও ২০১৮ সালে সামনে এসেছে ভিওওসি সুপার ফাস্ট চার্জিং টেকনোলজি। এই টেকনোলজিতে মাত্র ৩০ মিনিটে অপোর স্মার্টফোন ০ থেকে ৭৫ শতাংশ চার্জ হয়। এ ছাড়াও সম্প্রতি ওয়ান প্লাস সামনে এনেছে র‌্যাপ চার্জিং টেকনোলজি। এই টেকনোলজিতে ওয়ানপ্লাস সিক্সটি ম্যালারেন এডিশন স্মার্টফোন ০ থেকে ৫০ শতাংশ চার্জ হতে সময় লাগে মাত্র ২০ মিনিট।

১০. একাধিক ক্যামেরার ব্যবহার

২০১৮ সালে বাজারে আসা প্রায় সব স্মার্টফোনে অন্তত দুটি রিয়ার ক্যামেরা দেখা গেছে। বছরের শুরুতে অবমুক্ত হওয়া হুয়াওয়ে পি ২০ প্রো ফোনে প্রথম তিনটি ক্যামেরা দেখা যায়। এরপর হুয়াওয়ে মেট ২০ প্রো, স্যামসাং গ্যালাক্সি এস সেভেন (২০১৮), অপো আর১৭ প্রো ফোনের পিছনেও তিনটি করে ক্যামেরা দেখা গেছে। যদিও এসব ফোনকে ছাপিয়ে ২০১৮ সালে চারটি রিয়ার ক্যামেরাসহ বাজারে এসেছে স্যামসাং গ্যালাক্সি এ নাইন (২০১৮)।