ঢাকা ০৯:০৩ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ০৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ২৪ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম :
Logo ঐতিহ্যবাহী সোহরাওয়ার্দী কলেজ সাংবাদিক সমিতির কমিটি গঠন Logo চেয়ারম্যানের আহ্লাদে বেপরোয়া বিআইডব্লিউটিএ‘র কর্মচারি পান্না বিশ্বাস! Logo রাজউকে বদলী ও পদায়নে ভয়ংকর দুর্নীতি ফাঁস: নেপথ্য নায়ক প্রধান প্রকৌশলী  Logo কুবির শেখ হাসিনা হলের গ্যাস লিক, আতঙ্কে শিক্ষার্থীরা Logo ইন্টার্ন চিকিৎসকের হাত-পা ভেঙে দিলেন সহকর্মীরা Logo ঐতিহ্যবাহী শহীদ সোহরাওয়ার্দী কলেজে অফিসার্স কাউন্সিল নির্বাচন অনুষ্ঠিত  Logo একজন মমতাময়ী মায়ের উদাহরণ শাবির প্রাধ্যক্ষ জোবেদা কনক Logo বাংলা বিভাগের নতুন চেয়ারম্যান ড. শামসুজ্জামান মিলকী Logo মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটি শিক্ষার্থীদের দক্ষ জনশক্তি ও উদ্যোক্তা তৈরীতে ভূমিকা রাখবেঃ ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মোহাম্মদ জহিরুল হক  Logo কুবিতে প্রক্টরের সামনে সহকারী প্রক্টরকে মারতে তেড়ে গেলেন ২ নেতা




শিশুদের খেলার ছলে পড়াবে গুগল

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৭:৩৯:১৩ অপরাহ্ন, শনিবার, ৯ মে ২০২০ ৮৬ বার পড়া হয়েছে

তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক : করোনা মোকাবিলায় দীর্ঘদিন ধরে গৃহবন্দি জীবন। লকডাউনে শিকেয় উঠেছে পড়াশোনা। অনলাইনে ক্লাশ হলেও অনেক অভিভাবকই বলছেন, দিনের পর দিন স্কুল না যাওয়ায় পড়াশোনার প্রতি সন্তানদের অনীহা তৈরি হচ্ছে। একঘেয়ে বাড়িতে থাকতে থাকতে নিয়ম করে পড়তে বসতেও ইচ্ছে করছে না। কমছে মনোযোগ। খুদেদের এই সমস্যা সমাধান করতেই এবার প্রযুক্তিকে হাতিয়ার করল গুগল। যা নিঃসন্দেহে খুদেদের জীবনে আশীর্বাদ রূপেই ধরা দেবে। গুগল এমন একটি অ্যাপ এনেছে, যাতে নিজেরাই খেলার ছলে পড়াশোনা করবে কচিকাঁচারা।

গুগলের রিড অ্যালোন । পাঁচ বছরের বেশি বয়সের শিশুদের জন্যই তৈরি এই অ্যাপ। এর মাধ্যমে নিজে নিজেই নানা নতুন নতুন বিষয় শিখতে পারবে তারা। শুধু তাই নয়, খুদে পড়ুয়াদের কোনও প্রশ্ন থাকলে, তাও অডিও অথবা ভিজ্যুয়ালের মাধ্যমে উত্তর দেবে অ্যাপটি।

অ্যাপটি প্রসঙ্গে গুগল সিইও সুন্দর পিচাই বলেন, ‘রিড অ্যালোন অ্যাপটির মাধ্যমে বাচ্চাদের রিডিং পড়ার দক্ষতা বাড়বে। ১৮০টি দেশে হিন্দি, ইংরেজি, স্প্যানিশ, পর্তুগিজ-সহ মোট নয়টি ভাষায় এই অ্যাপটি আত্মপ্রকাশ করেছে। এই অ্যাপে শিশুরা কোনও গল্প জোরে জোরে পড়লে তার ভিজ্যুয়ালও দেখতে পারে।’

সবার আগে রিড অ্যালোন অ্যাপটি আসে ভারতে। তার নাম অবশ্য ছিল ‘বোলো’ (Bolo)। অল্প কয়েকদিনের মধ্যেই যা দারুণ জনপ্রিয় হয়ে ওঠে। অভিভাবকদের থেকেও ইতিবাচক প্রতিক্রিয়া মেলে। আর তারপরই বিশ্বব্যাপী নতুন করে অ্যাপটি আনার সিদ্ধান্ত নেয় এই সার্চ ইঞ্জিন কোম্পানি।

কীভাবে কাজ করে অ্যাপটি? রিড অ্যালোন অ্যাপ খুললেই দিয়া নামের এক বন্ধুকে পাবে শিশুরা। এরপর তারা মোবাইলের স্ক্রিনে ভেসে ওঠা গল্প জোরে পড়লে দিয়া গুগলের টেক্সট-টু- স্পিচ ও উচ্চারণ চিহ্নিত করার প্রযুক্তি ব্যবহার করে বলে দেবে, শিশুটি শব্দের সঠিক উচ্চারণ করছে কি না। দক্ষতা অনুযায়ী তাদের প্রশংসাও করবে।

এছাড়া কোনও শব্দ পড়তে গিয়ে আটকালে যে কোনও সময় দিয়ার পরামর্শ নিতে পারবে তারা। বাচ্চাদের কথা মাথায় রেখে অ্যাপে কোনও বিজ্ঞাপনও দেওয়া হবে না। লকডাউনে রিড অ্যালোন অভিভাবকদের মুখে হাসি ফোটাবে বলেই আশা গুগলের।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :




শিশুদের খেলার ছলে পড়াবে গুগল

আপডেট সময় : ০৭:৩৯:১৩ অপরাহ্ন, শনিবার, ৯ মে ২০২০

তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক : করোনা মোকাবিলায় দীর্ঘদিন ধরে গৃহবন্দি জীবন। লকডাউনে শিকেয় উঠেছে পড়াশোনা। অনলাইনে ক্লাশ হলেও অনেক অভিভাবকই বলছেন, দিনের পর দিন স্কুল না যাওয়ায় পড়াশোনার প্রতি সন্তানদের অনীহা তৈরি হচ্ছে। একঘেয়ে বাড়িতে থাকতে থাকতে নিয়ম করে পড়তে বসতেও ইচ্ছে করছে না। কমছে মনোযোগ। খুদেদের এই সমস্যা সমাধান করতেই এবার প্রযুক্তিকে হাতিয়ার করল গুগল। যা নিঃসন্দেহে খুদেদের জীবনে আশীর্বাদ রূপেই ধরা দেবে। গুগল এমন একটি অ্যাপ এনেছে, যাতে নিজেরাই খেলার ছলে পড়াশোনা করবে কচিকাঁচারা।

গুগলের রিড অ্যালোন । পাঁচ বছরের বেশি বয়সের শিশুদের জন্যই তৈরি এই অ্যাপ। এর মাধ্যমে নিজে নিজেই নানা নতুন নতুন বিষয় শিখতে পারবে তারা। শুধু তাই নয়, খুদে পড়ুয়াদের কোনও প্রশ্ন থাকলে, তাও অডিও অথবা ভিজ্যুয়ালের মাধ্যমে উত্তর দেবে অ্যাপটি।

অ্যাপটি প্রসঙ্গে গুগল সিইও সুন্দর পিচাই বলেন, ‘রিড অ্যালোন অ্যাপটির মাধ্যমে বাচ্চাদের রিডিং পড়ার দক্ষতা বাড়বে। ১৮০টি দেশে হিন্দি, ইংরেজি, স্প্যানিশ, পর্তুগিজ-সহ মোট নয়টি ভাষায় এই অ্যাপটি আত্মপ্রকাশ করেছে। এই অ্যাপে শিশুরা কোনও গল্প জোরে জোরে পড়লে তার ভিজ্যুয়ালও দেখতে পারে।’

সবার আগে রিড অ্যালোন অ্যাপটি আসে ভারতে। তার নাম অবশ্য ছিল ‘বোলো’ (Bolo)। অল্প কয়েকদিনের মধ্যেই যা দারুণ জনপ্রিয় হয়ে ওঠে। অভিভাবকদের থেকেও ইতিবাচক প্রতিক্রিয়া মেলে। আর তারপরই বিশ্বব্যাপী নতুন করে অ্যাপটি আনার সিদ্ধান্ত নেয় এই সার্চ ইঞ্জিন কোম্পানি।

কীভাবে কাজ করে অ্যাপটি? রিড অ্যালোন অ্যাপ খুললেই দিয়া নামের এক বন্ধুকে পাবে শিশুরা। এরপর তারা মোবাইলের স্ক্রিনে ভেসে ওঠা গল্প জোরে পড়লে দিয়া গুগলের টেক্সট-টু- স্পিচ ও উচ্চারণ চিহ্নিত করার প্রযুক্তি ব্যবহার করে বলে দেবে, শিশুটি শব্দের সঠিক উচ্চারণ করছে কি না। দক্ষতা অনুযায়ী তাদের প্রশংসাও করবে।

এছাড়া কোনও শব্দ পড়তে গিয়ে আটকালে যে কোনও সময় দিয়ার পরামর্শ নিতে পারবে তারা। বাচ্চাদের কথা মাথায় রেখে অ্যাপে কোনও বিজ্ঞাপনও দেওয়া হবে না। লকডাউনে রিড অ্যালোন অভিভাবকদের মুখে হাসি ফোটাবে বলেই আশা গুগলের।