ঢাকা ০২:৩৩ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই ২০২৪, ৩ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম :
Logo সিলেট-সুনামগঞ্জ মহাসড়কে আন্দোলনকারীরা পুলিশের উপর হামলা চালালে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে Logo জবিতে আজীবন ছাত্ররাজনীতি নিষিদ্ধ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ Logo শাবিতে হল প্রশাসনকে ভয়-ভীতি দেখিয়ে নোটিসে জোর পূর্বক সাইন আদায় Logo এবার সামনে আসছে ছাত্রলীগ কর্তৃক আন্দোলনকারীদের মারধরের আরো ঘটনা Logo আবাসিক হল ছাড়ছে শাবি শিক্ষার্থীরা Logo নিরাপত্তার স্বার্থে শাবি শিক্ষার্থীদের আইডিকার্ড সাথে রাখার আহবান বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের Logo জনস্বাস্থ্যের প্রধান সাধুর যত অসাধু কর্ম: দুর্নীতি ও অর্থ পাচারের অভিযোগ! Logo বিআইডব্লিউটিএ বন্দর শাখা যুগ্ম পরিচালক আলমগীরের দুর্নীতি ও ঘুষ বাণিজ্য  Logo রাজশাহীতে এটিএন বাংলার সাংবাদিক সুজাউদ্দিন ছোটনকে হয়রানিমূলক মামলায় বএিমইউজরে নিন্দা ও প্রতিবাদ Logo শিক্ষার্থীদের তথ্য প্রযুক্তিতে দক্ষ হয়ে স্মার্ট বাংলাদেশ গড়ায় অবদান রাখতে হবেঃ ড. তৌফিক রহমান চৌধুরী




কারবালার ঘটনা সত্যিই হৃদয়বিদারক

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ১১:৩৮:৫১ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১০ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ১২৪ বার পড়া হয়েছে

আমিরাত প্রতিনিধি

অন্যায় ও অসত্যের বিরুদ্ধে এবং সর্বদা সত্য ও ন্যায়ের পথে অবিচল থাকার কারবালার শিক্ষা বাস্তবায়নে ও আহলে বায়াতের প্রতি পরিপূর্ণ ভালোবাসা পোষণের মাধ্যমে যুব সমাজকে উদ্দীপ্ত করছে কাগতিয়া দরবার শরিফ। এ তরিক্বতের অনুশীলনে যুব সমাজ আভ্যন্তরীন পরিশুদ্ধির মাধ্যমে জঙ্গিবাদমুক্ত সমাজ গঠনে নিজেদেরকে নিয়োজিত করছে।

হযরত গাউছুল আজম রাদ্বিয়াল্লাহু প্রতিষ্ঠিত কাগতিয়া দরবারে রয়েছে আহলে বায়েতের প্রতিপূর্ণ ভালোবাসায় সিক্ত হতে এই তরিক্বতের অনুসারীদের প্রতিদিন ১১১১ বার দরুদে মোস্তফার পাশাপাশি বায়াতের পর প্রতিদিন কমপক্ষে ১২৫ বার আহলে বায়াতের প্রতি দরুদ পাঠের শিক্ষা।

সোমবার (৯ সেপ্টেম্বর) চট্টগ্রাম বায়েজিদস্থ গাউছুল আজম সিটিতে অবস্থিত কাগতিয়া আলীয়া গাউছুল আজম দরবার শরীফ কমপ্লেক্সে ৬৭তম পবিত্র আশুরা মাহফিলে উপস্থিত ধর্মপ্রাণ মুসলমানের উদ্দেশ্যে বক্তারা আরও বলেন, কারবালার ঘটনা সর্বকালের সবচেয়ে মর্মান্তিক, সত্যিই হৃদয়বিদারক।

এদিন কারবালা প্রান্তরে সত্য ও ন্যায় প্রতিষ্ঠায় নবীজির প্রিয় দৌহিত্র ইমাম হোসাইন রাদ্বিয়াল্লাহু আনহু পরিবারবসহ নিজের জীবন উৎসর্গ করেন, যা মুসলমানদের ইসলামের সত্য, সুন্দর ও ন্যায়ের পথে চলতে আজীবন প্রেরণা যোগাবে। মাহফিলে বক্তব্য দেন আল্লামা মুহাম্মদ আব্দুল হক ও মাওলানা মুহাম্মদ মনসুর প্রমুখ।

মুনিরীয়া যুব তবলীগ কমিটি বাংলাদেশের উদ্যোগে পবিত্র আশুরা মাহফিল উপলক্ষে গৃহীত বিভিন্ন কর্মসূচির মধ্যে ছিল বাদে জোহর পবিত্র খতমে কোরআন, বাদে আছর বিভিন্ন দাওয়াত শরীফ, বাদে মাগরিব জিকিরে গাউছুল আজম মোর্শেদী, বাদে এশা- শোহাদায়ে কারবালা শীর্ষক তকরির, মিলাদ, কিয়াম, আখেরি মোনাজাত এবং তাবাররুক বিতরণ।

মিলাদ-ক্বিয়াম শেষে বিশ্ব মুসলিম উম্মাহ সুখ, শান্তি ও সমৃদ্ধি এবং দরবারের প্রতিষ্ঠাতা হযরত গাউছুল আজম রাদ্বিয়াল্লাহু আন্হুর ফুয়ুজাত কামনা করে বিশেষ মোনাজাত পরিচালনা করেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :




কারবালার ঘটনা সত্যিই হৃদয়বিদারক

আপডেট সময় : ১১:৩৮:৫১ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১০ সেপ্টেম্বর ২০১৯

আমিরাত প্রতিনিধি

অন্যায় ও অসত্যের বিরুদ্ধে এবং সর্বদা সত্য ও ন্যায়ের পথে অবিচল থাকার কারবালার শিক্ষা বাস্তবায়নে ও আহলে বায়াতের প্রতি পরিপূর্ণ ভালোবাসা পোষণের মাধ্যমে যুব সমাজকে উদ্দীপ্ত করছে কাগতিয়া দরবার শরিফ। এ তরিক্বতের অনুশীলনে যুব সমাজ আভ্যন্তরীন পরিশুদ্ধির মাধ্যমে জঙ্গিবাদমুক্ত সমাজ গঠনে নিজেদেরকে নিয়োজিত করছে।

হযরত গাউছুল আজম রাদ্বিয়াল্লাহু প্রতিষ্ঠিত কাগতিয়া দরবারে রয়েছে আহলে বায়েতের প্রতিপূর্ণ ভালোবাসায় সিক্ত হতে এই তরিক্বতের অনুসারীদের প্রতিদিন ১১১১ বার দরুদে মোস্তফার পাশাপাশি বায়াতের পর প্রতিদিন কমপক্ষে ১২৫ বার আহলে বায়াতের প্রতি দরুদ পাঠের শিক্ষা।

সোমবার (৯ সেপ্টেম্বর) চট্টগ্রাম বায়েজিদস্থ গাউছুল আজম সিটিতে অবস্থিত কাগতিয়া আলীয়া গাউছুল আজম দরবার শরীফ কমপ্লেক্সে ৬৭তম পবিত্র আশুরা মাহফিলে উপস্থিত ধর্মপ্রাণ মুসলমানের উদ্দেশ্যে বক্তারা আরও বলেন, কারবালার ঘটনা সর্বকালের সবচেয়ে মর্মান্তিক, সত্যিই হৃদয়বিদারক।

এদিন কারবালা প্রান্তরে সত্য ও ন্যায় প্রতিষ্ঠায় নবীজির প্রিয় দৌহিত্র ইমাম হোসাইন রাদ্বিয়াল্লাহু আনহু পরিবারবসহ নিজের জীবন উৎসর্গ করেন, যা মুসলমানদের ইসলামের সত্য, সুন্দর ও ন্যায়ের পথে চলতে আজীবন প্রেরণা যোগাবে। মাহফিলে বক্তব্য দেন আল্লামা মুহাম্মদ আব্দুল হক ও মাওলানা মুহাম্মদ মনসুর প্রমুখ।

মুনিরীয়া যুব তবলীগ কমিটি বাংলাদেশের উদ্যোগে পবিত্র আশুরা মাহফিল উপলক্ষে গৃহীত বিভিন্ন কর্মসূচির মধ্যে ছিল বাদে জোহর পবিত্র খতমে কোরআন, বাদে আছর বিভিন্ন দাওয়াত শরীফ, বাদে মাগরিব জিকিরে গাউছুল আজম মোর্শেদী, বাদে এশা- শোহাদায়ে কারবালা শীর্ষক তকরির, মিলাদ, কিয়াম, আখেরি মোনাজাত এবং তাবাররুক বিতরণ।

মিলাদ-ক্বিয়াম শেষে বিশ্ব মুসলিম উম্মাহ সুখ, শান্তি ও সমৃদ্ধি এবং দরবারের প্রতিষ্ঠাতা হযরত গাউছুল আজম রাদ্বিয়াল্লাহু আন্হুর ফুয়ুজাত কামনা করে বিশেষ মোনাজাত পরিচালনা করেন।