ঢাকা ০৩:৩৬ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪, ৬ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম :




নব্য আওয়ামিলীগ সেজে ভেদুরিয়ার শিবির কর্মী ফিরোজের অপকর্ম -পর্ব-১

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৫:৫১:৪৪ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৪ জুলাই ২০১৯ ৭৭ বার পড়া হয়েছে

নিজস্ব প্রতিবেদক, ভোলা; 

তিনি কিছু দিন আগেও মাঠে ছিলেন জামায়েত শিবির হয়ে। বর্তমানে তিনি দল পরিবর্তন করে হয়েছেন আওয়ামী লীগ। শুধু দল পরিবর্তন করেই থেমে নেই তিনি। এলাকায় ত্রাস সৃষ্টি করে আসছেন দীর্ঘদিন ধরে। নাম তার ফিরোজ আলম। বাড়ী ভোলা জেলার ভেদুরিয়া ইউনিয়নের ৫ নং ওয়ার্ডে।

সূত্র জানা, কৃষকের ছেলে ফিরোজ আলম ব্যাংকের হাট আলিয়া মাদ্রাসা থেকে দাখিল ও আলিম পাশ করেন। উক্ত মাদ্রাসায় ছাত্র থাকাবস্থা থেকেই শিবিরের রাজনীতিতে জড়িত। এরপর গত সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ সরকার পূনরায় সরকার গঠন করার পর থেকেই ফিরোজ আওয়ামী লীগার বনে যান।

এলাকা সূত্রে জানা গেছে, ভেদুরিয়া ইউনিয়নের ৪ নং ওয়ার্ডের মেম্বার হাকিম ওরফে রফিক মিঝির হাত ধরেই আওয়ামী লীগার হন। এরপর থেকেই ফিরোজের ভাগ্যের চাকা খুলতে থাকে। দেড় বছর আগে অস্থায়ী ভাবে চাকরি নেন উত্তর ভেদুরিয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয় নামক একটি প্রতিষ্ঠানে।

অভিযোগ রয়েছে, গত পাঁচ বছর একাধিক মানুষকে বিদ্যুৎ ও বিদ্যুতের খুঁটি এনে দিবে বলে লক্ষাধিকেরও বেশি টাকা হাতিয়ে নিয়েছেন। এছাড়া নিরীহ লোকজনকে হতদরিদ্র রিলিফের কার্ড দিবেন বলেও টাকা হাতিয়ে নেন। জানা গেছে, নকীব চেয়ারম্যান নামে এক আওয়ামীলীগের নেতার আত্মীয় পরিচয় দিয়ে গভীর নলকূপ দিবেন বলেও মোটা অংকের টাকা হাতিয়ে নিচ্ছেন।

সূত্র জানা, তার কাছ থেকে নির্যাতন ও হয়রানী থেকে মুক্তি পায়নি স্বয়ং তার আত্মীয় স্বজন। তার এমন অপকর্ম থেকে মুক্তি চায় এলাকাবাসী। আরো বিস্তারিত পরবর্তীতে।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :




নব্য আওয়ামিলীগ সেজে ভেদুরিয়ার শিবির কর্মী ফিরোজের অপকর্ম -পর্ব-১

আপডেট সময় : ০৫:৫১:৪৪ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৪ জুলাই ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক, ভোলা; 

তিনি কিছু দিন আগেও মাঠে ছিলেন জামায়েত শিবির হয়ে। বর্তমানে তিনি দল পরিবর্তন করে হয়েছেন আওয়ামী লীগ। শুধু দল পরিবর্তন করেই থেমে নেই তিনি। এলাকায় ত্রাস সৃষ্টি করে আসছেন দীর্ঘদিন ধরে। নাম তার ফিরোজ আলম। বাড়ী ভোলা জেলার ভেদুরিয়া ইউনিয়নের ৫ নং ওয়ার্ডে।

সূত্র জানা, কৃষকের ছেলে ফিরোজ আলম ব্যাংকের হাট আলিয়া মাদ্রাসা থেকে দাখিল ও আলিম পাশ করেন। উক্ত মাদ্রাসায় ছাত্র থাকাবস্থা থেকেই শিবিরের রাজনীতিতে জড়িত। এরপর গত সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ সরকার পূনরায় সরকার গঠন করার পর থেকেই ফিরোজ আওয়ামী লীগার বনে যান।

এলাকা সূত্রে জানা গেছে, ভেদুরিয়া ইউনিয়নের ৪ নং ওয়ার্ডের মেম্বার হাকিম ওরফে রফিক মিঝির হাত ধরেই আওয়ামী লীগার হন। এরপর থেকেই ফিরোজের ভাগ্যের চাকা খুলতে থাকে। দেড় বছর আগে অস্থায়ী ভাবে চাকরি নেন উত্তর ভেদুরিয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয় নামক একটি প্রতিষ্ঠানে।

অভিযোগ রয়েছে, গত পাঁচ বছর একাধিক মানুষকে বিদ্যুৎ ও বিদ্যুতের খুঁটি এনে দিবে বলে লক্ষাধিকেরও বেশি টাকা হাতিয়ে নিয়েছেন। এছাড়া নিরীহ লোকজনকে হতদরিদ্র রিলিফের কার্ড দিবেন বলেও টাকা হাতিয়ে নেন। জানা গেছে, নকীব চেয়ারম্যান নামে এক আওয়ামীলীগের নেতার আত্মীয় পরিচয় দিয়ে গভীর নলকূপ দিবেন বলেও মোটা অংকের টাকা হাতিয়ে নিচ্ছেন।

সূত্র জানা, তার কাছ থেকে নির্যাতন ও হয়রানী থেকে মুক্তি পায়নি স্বয়ং তার আত্মীয় স্বজন। তার এমন অপকর্ম থেকে মুক্তি চায় এলাকাবাসী। আরো বিস্তারিত পরবর্তীতে।