ঢাকা ০৯:৩৬ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২২, ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ




‘সব দলের ক্ষেত্রে সমান আচরণ হবে’

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০২:১০:১২ অপরাহ্ন, সোমবার, ১০ ডিসেম্বর ২০১৮ ১৯ বার পড়া হয়েছে

 

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সব দলের সকল প্রার্থীর ক্ষেত্রে রিটার্নিং অফিসার ও সহকারী রিটার্নিং অফিসাররা সমান আচরণ করবে বলে মন্তব্য করেছেন ঢাকা বিভাগীয় কমিশনার কে এম আলী আজম। সোমবার দুপুরে সেগুন বাগিচায় ঢাকা বিভাগীয় কমিশিনারের কার্যালয়ে প্রার্থীদের প্রতীক বরাদ্দ শেষে তিনি এ কথা বলেন।

কে এম আলী আজম বলেন, মনোনীত প্রার্থীরা আজ (সোমবার) থেকে নির্বাচনী প্রচারণা শুরু করতে পারবেন। আচরণবিধি নিরুপনে প্রতিটি আসনে একজন করে ম্যাজিস্ট্রেট কাজ করছে। দুইজন সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা কাজ করছেন, কোনো কোনো ক্ষেত্রে আমরা সিটি কর্পোরেশনের সাহায্য নিচ্ছি। আচরণবিধি লংঘন করলে অপরাধের ধরন অনুযায়ী শাস্তি হবে। বিধি অনুযায়ী সর্বোচ্চ ৫০ হাজার টাকা ও সর্বোচ্চ ৬ মাসের জেল দেয়ার বিধান রয়েছে।

এর আগে ঢাকা-৪ থেকে ঢাকা ১৮ আসনের মোট ১৩২ জন প্রার্থীকে প্রতীক বরাদ্দ দেয়া হয়। তাদের মধ্যে ১১২ জন প্রার্থী উপস্থিত থেকে এবং মনোনীত প্রার্থীদের দ্বারা আনুষ্ঠানিকভাবে প্রতীক বুঝে নেন। বাকিরা বিকেল ৫টার মধ্যে প্রতীক নেবেন।

নির্বাচন কমিশনের পুনঃতফসিল অনুযায়ী আগামী ৩০ ডিসেম্বর একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। এছাড়া আজ (সোমবার) প্রতীক বরাদ্দ দেয়ার পর থেকে প্রার্থীরা নির্বাচনী প্রচারণা চালাতে পারবেন।

 

 

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :




‘সব দলের ক্ষেত্রে সমান আচরণ হবে’

আপডেট সময় : ০২:১০:১২ অপরাহ্ন, সোমবার, ১০ ডিসেম্বর ২০১৮

 

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সব দলের সকল প্রার্থীর ক্ষেত্রে রিটার্নিং অফিসার ও সহকারী রিটার্নিং অফিসাররা সমান আচরণ করবে বলে মন্তব্য করেছেন ঢাকা বিভাগীয় কমিশনার কে এম আলী আজম। সোমবার দুপুরে সেগুন বাগিচায় ঢাকা বিভাগীয় কমিশিনারের কার্যালয়ে প্রার্থীদের প্রতীক বরাদ্দ শেষে তিনি এ কথা বলেন।

কে এম আলী আজম বলেন, মনোনীত প্রার্থীরা আজ (সোমবার) থেকে নির্বাচনী প্রচারণা শুরু করতে পারবেন। আচরণবিধি নিরুপনে প্রতিটি আসনে একজন করে ম্যাজিস্ট্রেট কাজ করছে। দুইজন সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা কাজ করছেন, কোনো কোনো ক্ষেত্রে আমরা সিটি কর্পোরেশনের সাহায্য নিচ্ছি। আচরণবিধি লংঘন করলে অপরাধের ধরন অনুযায়ী শাস্তি হবে। বিধি অনুযায়ী সর্বোচ্চ ৫০ হাজার টাকা ও সর্বোচ্চ ৬ মাসের জেল দেয়ার বিধান রয়েছে।

এর আগে ঢাকা-৪ থেকে ঢাকা ১৮ আসনের মোট ১৩২ জন প্রার্থীকে প্রতীক বরাদ্দ দেয়া হয়। তাদের মধ্যে ১১২ জন প্রার্থী উপস্থিত থেকে এবং মনোনীত প্রার্থীদের দ্বারা আনুষ্ঠানিকভাবে প্রতীক বুঝে নেন। বাকিরা বিকেল ৫টার মধ্যে প্রতীক নেবেন।

নির্বাচন কমিশনের পুনঃতফসিল অনুযায়ী আগামী ৩০ ডিসেম্বর একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। এছাড়া আজ (সোমবার) প্রতীক বরাদ্দ দেয়ার পর থেকে প্রার্থীরা নির্বাচনী প্রচারণা চালাতে পারবেন।