ঢাকা ০৪:৫৬ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৯ মে ২০২৪, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম :
Logo গণপূর্ত প্রধান প্রকৌশলীর গাড়ি চাপায় পিষ্ট সহকারী প্রকৌশলী -উত্তাল গণপূর্ত Logo শাবিপ্রবির বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হলের উদ্যোগে বৃক্ষরোপণ Logo সওজের উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী নাহিনুরের সীমাহীন সম্পদ ও অনিয়ম -পর্ব-০১ Logo তামাক সেবনের আলাদা কক্ষ বানালেন গণপূর্তের নির্বাহী প্রকৌশলী: রয়েছে দুর্নীতির পাহাড়সম অভিযোগ! Logo দেশের সর্বোচ্চ আদালতকে বৃদ্ধাঙ্গুলি: কালবে সর্বোচ্চ পদ দখলে রেখেছে আগস্টিন! Logo আইআইএফসি ও মার্কটেল বাংলাদেশ’র মধ্যে কৌশলগত সহযোগিতা ও সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর Logo ফায়ার সার্ভিস সদর দপ্তর পরিদর্শনে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী Logo সর্বজনীন পেনশন প্রত্যাহারে শাবি শিক্ষক সমিতি মৌন মিছিল ও কালোব্যাজ ধারণ Logo শাবিপ্রবিতে কুমিল্লা স্টুডেন্টস এসোসিয়েশনের নবীনবরণ অনুষ্ঠিত Logo শাবিপ্রবি কেন্দ্রে সুষ্ঠভাবে গুচ্ছভর্তির তিন ইউনিটের পরীক্ষা সম্পন্ন




বিশ্বের সেরা প্রতিষ্ঠানসমূহে মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির শিক্ষার্থীদের সুসংহত অবস্থানে দেশের মুখ উজ্জ্বল হয়েছেঃ ড. তৌফিক রহমান চৌধুরী

প্রতিনিধি, সিলেট
  • আপডেট সময় : ০৮:৫৩:৪৪ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৭ জুলাই ২০২৩ ১৩১ বার পড়া হয়েছে

 

মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির প্রতিষ্ঠাতা ও বোর্ড অব ট্রাস্টিজের চেয়ারম্যান বিশিষ্ট শিক্ষানুরাগী ড. তৌফিক রহমান চৌধুরী বলেছেন, বিশ্বমানের শিক্ষাদান ও শিক্ষার্থীদের যুগের চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় যোগ্য করে গড়ে তুলতে আজ থেকে ২০ বছর পূর্বে সিলেটে মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটি যাত্রা শুরু করেছিল। সকলের সহায়তায় আজ এ বিশ্ববিদ্যালয় দেশের গৌরবে পরিণত হয়েছে দেখতে পেরে আমাদের পরিশ্রম ও ত্যাগ সার্থক হয়েছে। গুগল, অ্যামাজন, নিউইয়র্ক স্টক এক্সচেঞ্জসহ বিশ্বের সেরা প্রতিষ্ঠানসমূহে মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির শিক্ষার্থীদের সুসংহত অবস্থানে দেশের মুখ উজ্জ্বল হয়েছে। কেবল বৃহত্তর সিলেট নয়; সারা দেশ থেকে এখানে শিক্ষার্থীরা পড়তে আসছেন। এটা আমাদের জন্য গর্বের। আজ ১৭ জুলাই সোমবার বিকেল সাড়ে ৩টায় মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির ইলেকট্রিক্যাল এবং ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের অত্যাধুনিক সিমুলেশন ল্যাব উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ড. তৌফিক রহমান চৌধুরী উপর্যুক্ত কথাগুলো বলেন। মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মোহাম্মদ জহিরুল হকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বোর্ড অব ট্রাস্টিজের ভাইস চেয়ারম্যান তানভীর রহমান চৌধুরী। ড. তৌফিক রহমান চৌধুরী শিক্ষার্থীদের হাতে-কলমে শেখার অভিজ্ঞতার গুরুত্বের উপর জোর দিয়ে আরও বলেন, “সিমুলেশন ল্যাব মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির শিক্ষাগত অবকাঠামোতে নতুন সংযোজন। এই ল্যাবটি নিঃসন্দেহে আমাদের শিক্ষার্থীদের শেখার যাত্রাকে বাড়িয়ে তুলবে এবং তাদের ইলেকট্রিক্যাল এবং ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের দ্রুত বিকাশমান ক্ষেত্রে দক্ষতা অর্জনে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখবে।”

বোর্ড অব ট্রাস্টিজের ভাইস চেয়ারম্যান তানভীর রহমান চৌধুরী বলেন, “সিমুলেশন ল্যাব মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির প্রযুক্তিগত অগ্রগতিতে এগিয়ে থাকার অঙ্গীকারের একটি প্রমাণ। এই সুবিধা আমাদের শিক্ষার্থীদের তাত্ত্বিক জ্ঞান এবং ব্যবহারিক প্রয়োগের মধ্যে ব্যবধান পূরণ করতে সক্ষম করবে। আধুনিক শিক্ষাগত সম্পদে বিনিয়োগের মাধ্যমে, আমরা আমাদের শিক্ষার্থীদের শিল্প-প্রস্তুত পেশাদার হয়ে উঠতে সক্ষম করছি যারা আমাদের জাতির উন্নয়নে অবদান রাখতে পারে।”

সভাপতির বক্তৃতায় মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মোহাম্মদ জহিরুল হক বলেন, “আমরা যুগের চাহিদার প্রয়োজনে ইলেকট্রিক্যাল এবং ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগকে বিশেষ গুরুত্ব দিচ্ছি। ইতোমধ্যে সিলেটসহ বিশ্বের বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে এ বিভাগ থেকে ডিগ্রী নিয়ে আমাদের গ্র্যাজুয়েটরা নেতৃত্ব দিচ্ছেন। এ বিভাগে অচিরেই অন্ততঃ ৬ জন নতুন শিক্ষক যোগ দিচ্ছেন। অত্যাধুনিক সুযোগ সুবিধা ও দক্ষ শিক্ষকবৃন্দের প্রচেষ্ঠায় আমরা ইলেকট্রিক্যাল এবং ইলেকট্রনিক প্রকৌশল শিক্ষায় নেতৃত্ব দিতে চাই।”

অনুষ্ঠানে অন্যান্যে মধ্যে উপস্থিত ছিলেন স্কুল অব সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজির ডিন প্রফেসর ড. মো. নজরুল হক চৌধুরী, স্কুল অব বিজনেজ এন্ড ইকোনোমিক্স এর ডিন প্রফেসর ড. তাহের বিল্লাল খলিফা, স্কুল অফ ল এর ভারপ্রাপ্ত ডিন শেখ আশরাফুর রহমান, ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রধান কাজী অহিদুজ্জামান, সিএসই বিভাগের প্রধান মাহফুজুল হাসান, সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রধান ফুয়াদ আহমেদ, ছাত্র কল্যাণ উপদেষ্টা প্রফেসর চৌধুরী এম. মোকাম্মেল ওয়াহিদ, ইংরেজী বিভাগের প্রধান ড. রমা ইসলাম, ব্যবসায় প্রশাসন বিভাগের প্রধান মাসুদ রানা, রেজিস্ট্রার তারেক ইসলাম, পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক খন্দকার মকসুদ আহমেদ, পরিচালক (অর্থ) মো. এনামুল হক, ডেপুটি রেজিস্ট্রার মিহির কান্তি চৌধুরী, সহকারি পরিচালক (আইটি) সামির আহমেদ, প্রমুখ।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :




বিশ্বের সেরা প্রতিষ্ঠানসমূহে মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির শিক্ষার্থীদের সুসংহত অবস্থানে দেশের মুখ উজ্জ্বল হয়েছেঃ ড. তৌফিক রহমান চৌধুরী

আপডেট সময় : ০৮:৫৩:৪৪ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৭ জুলাই ২০২৩

 

মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির প্রতিষ্ঠাতা ও বোর্ড অব ট্রাস্টিজের চেয়ারম্যান বিশিষ্ট শিক্ষানুরাগী ড. তৌফিক রহমান চৌধুরী বলেছেন, বিশ্বমানের শিক্ষাদান ও শিক্ষার্থীদের যুগের চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় যোগ্য করে গড়ে তুলতে আজ থেকে ২০ বছর পূর্বে সিলেটে মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটি যাত্রা শুরু করেছিল। সকলের সহায়তায় আজ এ বিশ্ববিদ্যালয় দেশের গৌরবে পরিণত হয়েছে দেখতে পেরে আমাদের পরিশ্রম ও ত্যাগ সার্থক হয়েছে। গুগল, অ্যামাজন, নিউইয়র্ক স্টক এক্সচেঞ্জসহ বিশ্বের সেরা প্রতিষ্ঠানসমূহে মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির শিক্ষার্থীদের সুসংহত অবস্থানে দেশের মুখ উজ্জ্বল হয়েছে। কেবল বৃহত্তর সিলেট নয়; সারা দেশ থেকে এখানে শিক্ষার্থীরা পড়তে আসছেন। এটা আমাদের জন্য গর্বের। আজ ১৭ জুলাই সোমবার বিকেল সাড়ে ৩টায় মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির ইলেকট্রিক্যাল এবং ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের অত্যাধুনিক সিমুলেশন ল্যাব উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ড. তৌফিক রহমান চৌধুরী উপর্যুক্ত কথাগুলো বলেন। মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মোহাম্মদ জহিরুল হকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বোর্ড অব ট্রাস্টিজের ভাইস চেয়ারম্যান তানভীর রহমান চৌধুরী। ড. তৌফিক রহমান চৌধুরী শিক্ষার্থীদের হাতে-কলমে শেখার অভিজ্ঞতার গুরুত্বের উপর জোর দিয়ে আরও বলেন, “সিমুলেশন ল্যাব মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির শিক্ষাগত অবকাঠামোতে নতুন সংযোজন। এই ল্যাবটি নিঃসন্দেহে আমাদের শিক্ষার্থীদের শেখার যাত্রাকে বাড়িয়ে তুলবে এবং তাদের ইলেকট্রিক্যাল এবং ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের দ্রুত বিকাশমান ক্ষেত্রে দক্ষতা অর্জনে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখবে।”

বোর্ড অব ট্রাস্টিজের ভাইস চেয়ারম্যান তানভীর রহমান চৌধুরী বলেন, “সিমুলেশন ল্যাব মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির প্রযুক্তিগত অগ্রগতিতে এগিয়ে থাকার অঙ্গীকারের একটি প্রমাণ। এই সুবিধা আমাদের শিক্ষার্থীদের তাত্ত্বিক জ্ঞান এবং ব্যবহারিক প্রয়োগের মধ্যে ব্যবধান পূরণ করতে সক্ষম করবে। আধুনিক শিক্ষাগত সম্পদে বিনিয়োগের মাধ্যমে, আমরা আমাদের শিক্ষার্থীদের শিল্প-প্রস্তুত পেশাদার হয়ে উঠতে সক্ষম করছি যারা আমাদের জাতির উন্নয়নে অবদান রাখতে পারে।”

সভাপতির বক্তৃতায় মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মোহাম্মদ জহিরুল হক বলেন, “আমরা যুগের চাহিদার প্রয়োজনে ইলেকট্রিক্যাল এবং ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগকে বিশেষ গুরুত্ব দিচ্ছি। ইতোমধ্যে সিলেটসহ বিশ্বের বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে এ বিভাগ থেকে ডিগ্রী নিয়ে আমাদের গ্র্যাজুয়েটরা নেতৃত্ব দিচ্ছেন। এ বিভাগে অচিরেই অন্ততঃ ৬ জন নতুন শিক্ষক যোগ দিচ্ছেন। অত্যাধুনিক সুযোগ সুবিধা ও দক্ষ শিক্ষকবৃন্দের প্রচেষ্ঠায় আমরা ইলেকট্রিক্যাল এবং ইলেকট্রনিক প্রকৌশল শিক্ষায় নেতৃত্ব দিতে চাই।”

অনুষ্ঠানে অন্যান্যে মধ্যে উপস্থিত ছিলেন স্কুল অব সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজির ডিন প্রফেসর ড. মো. নজরুল হক চৌধুরী, স্কুল অব বিজনেজ এন্ড ইকোনোমিক্স এর ডিন প্রফেসর ড. তাহের বিল্লাল খলিফা, স্কুল অফ ল এর ভারপ্রাপ্ত ডিন শেখ আশরাফুর রহমান, ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রধান কাজী অহিদুজ্জামান, সিএসই বিভাগের প্রধান মাহফুজুল হাসান, সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রধান ফুয়াদ আহমেদ, ছাত্র কল্যাণ উপদেষ্টা প্রফেসর চৌধুরী এম. মোকাম্মেল ওয়াহিদ, ইংরেজী বিভাগের প্রধান ড. রমা ইসলাম, ব্যবসায় প্রশাসন বিভাগের প্রধান মাসুদ রানা, রেজিস্ট্রার তারেক ইসলাম, পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক খন্দকার মকসুদ আহমেদ, পরিচালক (অর্থ) মো. এনামুল হক, ডেপুটি রেজিস্ট্রার মিহির কান্তি চৌধুরী, সহকারি পরিচালক (আইটি) সামির আহমেদ, প্রমুখ।