ঢাকা ১০:০৪ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২২, ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ




ভাই জি এম কাদেরকে অব্যাহতি দিলেন এরশাদ

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৮:৩৭:৫৭ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২৩ মার্চ ২০১৯ ২০ বার পড়া হয়েছে

নিজস্ব প্রতিবেদক, জাতীয় পার্টির কো–চেয়ারম্যানের পদ থেকে নিজের ভাই জি এম কাদেরকে সরিয়ে দিয়েছেন দলের চেয়ারম্যান এইচ এম এরশাদ। আজ শুক্রবার রাতে দলের নেতা–কর্মীদের এ সিদ্ধান্তের কথা জানান এরশাদ।

জি এম কাদেরকে কো-চেয়ারম্যানের পদ থেকে অব্যাহতির কথা জানিয়ে এরশাদের সই করা ‘সাংগঠনিক নির্দেশের’ অনুলিপি দলের পক্ষ থেকে গণমাধ্যমকর্মীদের কাছেও পাঠানো হয়। এতে বলা হয়, ‘আমি (এরশাদ) ইতোপূর্বে ঘোষণা দিয়েছিলাম যে আমার অবর্তমানে পার্টির কো–চেয়ারম্যান গোলাম মোহাম্মদ কাদের পার্টির পরিচালনার সার্বিক দায়িত্ব পালন করবেন এবং আমি এটাও আশা প্রকাশ করেছিলাম যে পার্টির পরবর্তী জাতীয় কাউন্সিল তাঁকে চেয়ারম্যান নির্বাচিত করবে। কিন্তু পার্টির বর্তমান সার্বিক অবস্থার বিবেচনায় আমার ইতোপূর্বেকার সেই ঘোষণা প্রত্যাহার করে নিলাম।’

‘সাংগঠনিক নির্দেশে’ এরশাদ আরও উল্লেখ করেন, জাতীয় পার্টির সাংগঠনিক কার্যক্রম ঝিমিয়ে পড়েছে এবং পার্টির মধ্যে বিভেদ সৃষ্টি হয়েছে।

তবে জি এম কাদের দলের সর্বোচ্চ নীতিনির্ধারণী পর্ষদ প্রেসিডিয়ামের সদস্য পদে বহাল থাকবেন। কিন্তু তিনি জাতীয় সংসদে বিরোধীদলীয় উপনেতার পদে বহাল থাকতে পারবেন কি না, তা জাতীয় পার্টির সংসদীয় দল নির্ধারণ করবে বলে সাংগঠনিক নির্দেশে উল্লেখ রয়েছে।

হঠাৎ এরশাদ কেন সিদ্ধান্ত পাল্টালেন তা জানতে আজ রাতে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে জি এম কাদের বলেন, দলের দু–তিনজন নেতার কাছ থেকে বিষয়টি তিনিও শুনেছেন। আনুষ্ঠানিকভাবে এ বিষয়ে দল থেকে তাঁকে কিছু জানানো হয়নি।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :




ভাই জি এম কাদেরকে অব্যাহতি দিলেন এরশাদ

আপডেট সময় : ০৮:৩৭:৫৭ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২৩ মার্চ ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক, জাতীয় পার্টির কো–চেয়ারম্যানের পদ থেকে নিজের ভাই জি এম কাদেরকে সরিয়ে দিয়েছেন দলের চেয়ারম্যান এইচ এম এরশাদ। আজ শুক্রবার রাতে দলের নেতা–কর্মীদের এ সিদ্ধান্তের কথা জানান এরশাদ।

জি এম কাদেরকে কো-চেয়ারম্যানের পদ থেকে অব্যাহতির কথা জানিয়ে এরশাদের সই করা ‘সাংগঠনিক নির্দেশের’ অনুলিপি দলের পক্ষ থেকে গণমাধ্যমকর্মীদের কাছেও পাঠানো হয়। এতে বলা হয়, ‘আমি (এরশাদ) ইতোপূর্বে ঘোষণা দিয়েছিলাম যে আমার অবর্তমানে পার্টির কো–চেয়ারম্যান গোলাম মোহাম্মদ কাদের পার্টির পরিচালনার সার্বিক দায়িত্ব পালন করবেন এবং আমি এটাও আশা প্রকাশ করেছিলাম যে পার্টির পরবর্তী জাতীয় কাউন্সিল তাঁকে চেয়ারম্যান নির্বাচিত করবে। কিন্তু পার্টির বর্তমান সার্বিক অবস্থার বিবেচনায় আমার ইতোপূর্বেকার সেই ঘোষণা প্রত্যাহার করে নিলাম।’

‘সাংগঠনিক নির্দেশে’ এরশাদ আরও উল্লেখ করেন, জাতীয় পার্টির সাংগঠনিক কার্যক্রম ঝিমিয়ে পড়েছে এবং পার্টির মধ্যে বিভেদ সৃষ্টি হয়েছে।

তবে জি এম কাদের দলের সর্বোচ্চ নীতিনির্ধারণী পর্ষদ প্রেসিডিয়ামের সদস্য পদে বহাল থাকবেন। কিন্তু তিনি জাতীয় সংসদে বিরোধীদলীয় উপনেতার পদে বহাল থাকতে পারবেন কি না, তা জাতীয় পার্টির সংসদীয় দল নির্ধারণ করবে বলে সাংগঠনিক নির্দেশে উল্লেখ রয়েছে।

হঠাৎ এরশাদ কেন সিদ্ধান্ত পাল্টালেন তা জানতে আজ রাতে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে জি এম কাদের বলেন, দলের দু–তিনজন নেতার কাছ থেকে বিষয়টি তিনিও শুনেছেন। আনুষ্ঠানিকভাবে এ বিষয়ে দল থেকে তাঁকে কিছু জানানো হয়নি।