ঢাকা ১১:৫৭ অপরাহ্ন, বুধবার, ৩০ নভেম্বর ২০২২, ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম :




ধর্মে মোজাম্মেল, প্রবাসী কল্যাণে মোশাররফ

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৪:০৪:২৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৮ ১৪ বার পড়া হয়েছে

 

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ টেকনোক্র্যাট চার মন্ত্রীর পদত্যাগের পর খালি থাকা চার মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব বণ্টন করা হয়েছে। মঙ্গলবার (১১ ডিসেম্বর) দায়িত্ব বণ্টন করে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে আদেশ জারি করা হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী ছাড়াও আরও দুইজন মন্ত্রীকে অতিরিক্ত হিসেবে এসব মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব দেয়া হয়েছে।

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয় এবং ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব প্রধানমন্ত্রী নিজের কাছে রেখেছেন। বর্তমানে প্রধানমন্ত্রী মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ, প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় ও সশস্ত্র বাহিনী বিভাগের মন্ত্রীর দায়িত্বে রয়েছেন। এখন অতিরিক্ত হিসেবে আরও দুই মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করবেন তিনি।

অতিরিক্ত হিসেবে ধর্ম মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পেয়েছেন আ ক ম মোজাম্মেল হক, যিনি মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পালন করছেন।

অপরদিকে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পেয়েছেন খন্দকার মোশাররফ হোসেন। তিনি স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব রয়েছেন।

 

গত ৯ ডিসেম্বর ধর্মমন্ত্রী মতিউর রহমান, প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী নুরুল ইসলাম বিএসসি, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিমন্ত্রী ইয়াফেস ওসমান এবং ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বারের পদত্যাগপত্র গ্রহণ করে প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়। এরপরই এই চার মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রীর পদ শূন্য হয়ে পড়ে।

নির্বাচনকালীন মন্ত্রিসভায় কোনো টেকনোক্র্যাট মন্ত্রী না রাখার সিদ্ধান্ত রয়েছে সরকারের। তাই গত ৬ নভেম্বর মন্ত্রিসভা বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা টেকনোক্র্যাট (সংসদ সদস্য না হয়েও বিশেষ বিবেচনায় মন্ত্রী) মন্ত্রীদের পদত্যাগের নির্দেশ দেন। ওইদিনই বিকেল থেকে সন্ধ্যার মধ্যে চার মন্ত্রী মন্ত্রিপরিষদ বিভাগে পদত্যাগপত্র জমা দেন।

বর্তমানে মন্ত্রিসভায় প্রধানমন্ত্রী ছাড়া ২৯ জন মন্ত্রী, ১৭ জন প্রতিমন্ত্রী, দুইজন উপমন্ত্রী রয়েছেন।

গত ৩ ডিসেম্বর বর্তমান সরকারের শেষ মন্ত্রিসভা বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে।

তফসিল অনুযায়ী আগামী ৩০ ডিসেম্বর একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

 

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :




ধর্মে মোজাম্মেল, প্রবাসী কল্যাণে মোশাররফ

আপডেট সময় : ০৪:০৪:২৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৮

 

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ টেকনোক্র্যাট চার মন্ত্রীর পদত্যাগের পর খালি থাকা চার মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব বণ্টন করা হয়েছে। মঙ্গলবার (১১ ডিসেম্বর) দায়িত্ব বণ্টন করে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে আদেশ জারি করা হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী ছাড়াও আরও দুইজন মন্ত্রীকে অতিরিক্ত হিসেবে এসব মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব দেয়া হয়েছে।

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয় এবং ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব প্রধানমন্ত্রী নিজের কাছে রেখেছেন। বর্তমানে প্রধানমন্ত্রী মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ, প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় ও সশস্ত্র বাহিনী বিভাগের মন্ত্রীর দায়িত্বে রয়েছেন। এখন অতিরিক্ত হিসেবে আরও দুই মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করবেন তিনি।

অতিরিক্ত হিসেবে ধর্ম মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পেয়েছেন আ ক ম মোজাম্মেল হক, যিনি মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পালন করছেন।

অপরদিকে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পেয়েছেন খন্দকার মোশাররফ হোসেন। তিনি স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব রয়েছেন।

 

গত ৯ ডিসেম্বর ধর্মমন্ত্রী মতিউর রহমান, প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী নুরুল ইসলাম বিএসসি, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিমন্ত্রী ইয়াফেস ওসমান এবং ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বারের পদত্যাগপত্র গ্রহণ করে প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়। এরপরই এই চার মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রীর পদ শূন্য হয়ে পড়ে।

নির্বাচনকালীন মন্ত্রিসভায় কোনো টেকনোক্র্যাট মন্ত্রী না রাখার সিদ্ধান্ত রয়েছে সরকারের। তাই গত ৬ নভেম্বর মন্ত্রিসভা বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা টেকনোক্র্যাট (সংসদ সদস্য না হয়েও বিশেষ বিবেচনায় মন্ত্রী) মন্ত্রীদের পদত্যাগের নির্দেশ দেন। ওইদিনই বিকেল থেকে সন্ধ্যার মধ্যে চার মন্ত্রী মন্ত্রিপরিষদ বিভাগে পদত্যাগপত্র জমা দেন।

বর্তমানে মন্ত্রিসভায় প্রধানমন্ত্রী ছাড়া ২৯ জন মন্ত্রী, ১৭ জন প্রতিমন্ত্রী, দুইজন উপমন্ত্রী রয়েছেন।

গত ৩ ডিসেম্বর বর্তমান সরকারের শেষ মন্ত্রিসভা বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে।

তফসিল অনুযায়ী আগামী ৩০ ডিসেম্বর একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।