ঢাকা ০২:৪১ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২২, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম :




ঝিনাইদহে জন্ম সনদে স্বাক্ষর আনতে গিয়ে মেম্বার কর্তৃক ১৬ বছরের কিশোরী ধর্ষণের শিকার

জেলা প্রতিবেদক:
  • আপডেট সময় : ০৯:৪১:২৭ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১২ নভেম্বর ২০২২ ৯৪ বার পড়া হয়েছে

ঝিনাইদহের শৈলকূপায় জন্ম নিবন্ধনের ফর্মে স্বাক্ষর নিতে গিয়ে আনোয়ার হোসেন নামে এক মেম্বার কর্তৃক ১৬ বছরের এক কিশোরী ধর্ষণের শিকার হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। মেয়েটি এবার এসএসসি পরীক্ষা দিয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার সারুটিয়া ইউনিয়নের কৃষ্ণনগর গ্রামে।

এ ঘটনায় শুক্রবার (১১ নভেম্বর) মেয়েটির মা বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেছেন। অভিযুক্ত আনোয়ার হোসেন সারুটিয়া ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডের মেম্বার ও কৃষ্ণনগর গ্রামের মৃত মোজাহার শেখের ছেলে।

জানা যায়, বৃহস্পতিবার দুপুরে কৃষ্ণনগর গ্রামের দিনমজুরের মেয়ে কাতলাগাড়ী বাজারে আনোয়ার মেম্বারের বাসায় জন্ম নিবন্ধনের ফর্মে স্বাক্ষর আনতে যায়। এ সময় ফাঁকা বাসায় ভুক্তভোগীকে একা পেয়ে জোরপূর্বক টেনে হিঁচড়ে তিন তলায় নিয়ে তাকে ধর্ষণ করে। ধর্ষণ শেষে বিষয়টি কাউকে জানাতে নিষেধ করে এবং বললে তাকে হত্যার হুমকি দেয় অভিযুক্ত আনোয়ার। পরে মেয়েটি বাসায় ফিরে অসুস্থ হয়ে পড়লে এক পর্যায়ে তার বাবা-মাকে সব খুলে বলে সে। বিষয়টি জানাজানি হলে আনোয়ার মেম্বার আপস মীমাংসার চেষ্টা করে। ভুক্তভোগীর পরিবার এতে রাজি না হওয়ায় তাদের দেখে নেয়ারও হুমকি দেয়। এ ঘটনায় নির্যাতনের শিকার কিশোরীর মা বাদী হয়ে শুক্রবার শৈলকূপা থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলা দায়েরের পর থেকে গা ঢাকা দিয়েছে আনোয়ার মেম্বার।

শৈলকূপা থানার তদন্ত (ওসি) ঠাকুর কুমার দাস বলেন, ধর্ষণের ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের হয়েছে। ভিকটিমকে উদ্ধার করে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য ঝিনাইদহ সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। আসামি আনোয়ার হোসেনকে গ্রেফতার করতে পুলিশ অভিযান চালাচ্ছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :




error: Content is protected !!

ঝিনাইদহে জন্ম সনদে স্বাক্ষর আনতে গিয়ে মেম্বার কর্তৃক ১৬ বছরের কিশোরী ধর্ষণের শিকার

আপডেট সময় : ০৯:৪১:২৭ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১২ নভেম্বর ২০২২

ঝিনাইদহের শৈলকূপায় জন্ম নিবন্ধনের ফর্মে স্বাক্ষর নিতে গিয়ে আনোয়ার হোসেন নামে এক মেম্বার কর্তৃক ১৬ বছরের এক কিশোরী ধর্ষণের শিকার হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। মেয়েটি এবার এসএসসি পরীক্ষা দিয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার সারুটিয়া ইউনিয়নের কৃষ্ণনগর গ্রামে।

এ ঘটনায় শুক্রবার (১১ নভেম্বর) মেয়েটির মা বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেছেন। অভিযুক্ত আনোয়ার হোসেন সারুটিয়া ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডের মেম্বার ও কৃষ্ণনগর গ্রামের মৃত মোজাহার শেখের ছেলে।

জানা যায়, বৃহস্পতিবার দুপুরে কৃষ্ণনগর গ্রামের দিনমজুরের মেয়ে কাতলাগাড়ী বাজারে আনোয়ার মেম্বারের বাসায় জন্ম নিবন্ধনের ফর্মে স্বাক্ষর আনতে যায়। এ সময় ফাঁকা বাসায় ভুক্তভোগীকে একা পেয়ে জোরপূর্বক টেনে হিঁচড়ে তিন তলায় নিয়ে তাকে ধর্ষণ করে। ধর্ষণ শেষে বিষয়টি কাউকে জানাতে নিষেধ করে এবং বললে তাকে হত্যার হুমকি দেয় অভিযুক্ত আনোয়ার। পরে মেয়েটি বাসায় ফিরে অসুস্থ হয়ে পড়লে এক পর্যায়ে তার বাবা-মাকে সব খুলে বলে সে। বিষয়টি জানাজানি হলে আনোয়ার মেম্বার আপস মীমাংসার চেষ্টা করে। ভুক্তভোগীর পরিবার এতে রাজি না হওয়ায় তাদের দেখে নেয়ারও হুমকি দেয়। এ ঘটনায় নির্যাতনের শিকার কিশোরীর মা বাদী হয়ে শুক্রবার শৈলকূপা থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলা দায়েরের পর থেকে গা ঢাকা দিয়েছে আনোয়ার মেম্বার।

শৈলকূপা থানার তদন্ত (ওসি) ঠাকুর কুমার দাস বলেন, ধর্ষণের ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের হয়েছে। ভিকটিমকে উদ্ধার করে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য ঝিনাইদহ সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। আসামি আনোয়ার হোসেনকে গ্রেফতার করতে পুলিশ অভিযান চালাচ্ছে।