ঢাকা ০৮:৫৪ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২২, ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ




প্লাজা ট্রাজেডির অষ্টমবার্ষিকী: মোমবাতি জ্বালিয়ে নিহতদের স্মরণ

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০২:২২:৩২ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৪ এপ্রিল ২০২১ ৩২ বার পড়া হয়েছে

নিজস্ব প্রতিবেদক: আজ ২৪ এপ্রিল, সাভারের রানা প্লাজা ট্রাজেডির অষ্টমবার্ষিকী। দিনটি স্মরণে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে মোমবাতি প্রজ্বলন করেছে জাতীয় গার্মেন্টস শ্রমিক ফেডারেশন। একইসঙ্গে রানা প্লাজার ঘটনায় নিহত ও আহতদের ক্ষতিপূরণ দেওয়ার ও মালিকের শাস্তির দাবি জানানো হয়েছে।

শনিবার (২৪ এপ্রিল) জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে সংগঠনটি আয়োজিত ‘রানা প্লাজা-তাজরিন, নেভার এগেইন’ শিরোনামে মোমবাতি প্রজ্বলন কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়।

কর্মসূচিতে বক্তারা বলেন, রানা প্লাজা ধসের আট বছর অতিবাহিত হলেও এখন পর্যন্ত মালিকের শাস্তি নিশ্চিত করা হয়নি। এটি নিছক কোনো দুর্ঘটনা নয়, এটি একটি অবহেলাজনিত শ্রমিক হত্যা। বাংলাদেশে এখন পর্যন্ত শতাধিক কারখানায় অগ্নিকাণ্ডে কয়েক হাজার গার্মেন্ট শ্রমিক নিহত হয়েছেন এবং আহত হয়েছেন আরও বেশি। রানা প্লাজার নিহত-আহতদের পরিবারকে কিছু ক্ষতিপূরণ দেওয়া হলেও আইএলও কনভেনশন আন্তর্জাতিক মানদণ্ড অনুযায়ী বেশি সংখ্যক শ্রমিক এখনও ক্ষতিপূরণ পায়নি। ওই ঘটনায় শত শত শ্রমিক পঙ্গুত্ব বরণ করেছেন। কিন্তু এই শ্রমিক হত্যার দায়ে আজ পর্যন্ত মালিকের বিচার হয়নি। আর এ কারণেই এই ধরনের অপরাধ ও দায়িত্বহীনতা দিনের পর দিন বেড়ে চলেছে। আর শ্রমিকরা আজও অবহেলিত ও বঞ্চিত হচ্ছে।

কর্মসূচিতে উপস্থিত ছিলেন জাতীয় গার্মেন্টস শ্রমিক ফেডারেশনের সভাপতি আমিরুল হক আমিন, সাধারণ সম্পাদক আরিফা আক্তার, সহ-সভাপতি সাফিয়া পারভীন, কবির হোসেন প্রমুখ। এছাড়া একতা গার্মেন্টস শ্রমিক ফেডারেশনের সহ-সভাপতি সিমা আক্তার কর্মসূচিতে সংহতি প্রকাশ করেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :




প্লাজা ট্রাজেডির অষ্টমবার্ষিকী: মোমবাতি জ্বালিয়ে নিহতদের স্মরণ

আপডেট সময় : ০২:২২:৩২ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৪ এপ্রিল ২০২১

নিজস্ব প্রতিবেদক: আজ ২৪ এপ্রিল, সাভারের রানা প্লাজা ট্রাজেডির অষ্টমবার্ষিকী। দিনটি স্মরণে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে মোমবাতি প্রজ্বলন করেছে জাতীয় গার্মেন্টস শ্রমিক ফেডারেশন। একইসঙ্গে রানা প্লাজার ঘটনায় নিহত ও আহতদের ক্ষতিপূরণ দেওয়ার ও মালিকের শাস্তির দাবি জানানো হয়েছে।

শনিবার (২৪ এপ্রিল) জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে সংগঠনটি আয়োজিত ‘রানা প্লাজা-তাজরিন, নেভার এগেইন’ শিরোনামে মোমবাতি প্রজ্বলন কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়।

কর্মসূচিতে বক্তারা বলেন, রানা প্লাজা ধসের আট বছর অতিবাহিত হলেও এখন পর্যন্ত মালিকের শাস্তি নিশ্চিত করা হয়নি। এটি নিছক কোনো দুর্ঘটনা নয়, এটি একটি অবহেলাজনিত শ্রমিক হত্যা। বাংলাদেশে এখন পর্যন্ত শতাধিক কারখানায় অগ্নিকাণ্ডে কয়েক হাজার গার্মেন্ট শ্রমিক নিহত হয়েছেন এবং আহত হয়েছেন আরও বেশি। রানা প্লাজার নিহত-আহতদের পরিবারকে কিছু ক্ষতিপূরণ দেওয়া হলেও আইএলও কনভেনশন আন্তর্জাতিক মানদণ্ড অনুযায়ী বেশি সংখ্যক শ্রমিক এখনও ক্ষতিপূরণ পায়নি। ওই ঘটনায় শত শত শ্রমিক পঙ্গুত্ব বরণ করেছেন। কিন্তু এই শ্রমিক হত্যার দায়ে আজ পর্যন্ত মালিকের বিচার হয়নি। আর এ কারণেই এই ধরনের অপরাধ ও দায়িত্বহীনতা দিনের পর দিন বেড়ে চলেছে। আর শ্রমিকরা আজও অবহেলিত ও বঞ্চিত হচ্ছে।

কর্মসূচিতে উপস্থিত ছিলেন জাতীয় গার্মেন্টস শ্রমিক ফেডারেশনের সভাপতি আমিরুল হক আমিন, সাধারণ সম্পাদক আরিফা আক্তার, সহ-সভাপতি সাফিয়া পারভীন, কবির হোসেন প্রমুখ। এছাড়া একতা গার্মেন্টস শ্রমিক ফেডারেশনের সহ-সভাপতি সিমা আক্তার কর্মসূচিতে সংহতি প্রকাশ করেন।