• ২০শে আগস্ট ২০২২ খ্রিস্টাব্দ , ৫ই ভাদ্র ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

বালিশচাপা দেন বাবা-মা, যৌনাঙ্গ কেটে দেন বোন শিলা

সকালের সংবাদ ডেস্ক;
প্রকাশিত জানুয়ারি ১০, ২০২১, ০৯:১০ পূর্বাহ্ণ
বালিশচাপা দেন বাবা-মা, যৌনাঙ্গ কেটে দেন বোন শিলা

জেলা প্রতিনিধি;

মুন্সিগঞ্জের গজারিয়া উপজেলায় নিখোঁজের ১৭ দিন পর ডোবা থেকে উদ্ধারকৃত সেই অর্ধগলিত যুবককে তার পরিবারের লোকজনই হত্যা করেছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। এ ঘটনায় নিহতের বাবা, মা ও বোনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

শনিবার (৯ জানুয়ারি) এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে এ তথ্য নিশ্চিত করেছে গজারিয়া থানা পুলিশ।

এ ঘটনায় একইদিন সকালে মো. হাসানকে (২০) হত্যার অভিযোগে তার বাবা মো. শামীম (৪০), মা হাসিনা বেগম (৩৮) ও বোন শিলা আক্তারকে (১৫) গ্রেফতার করা হয়েছে।

গজারিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. রইছ উদ্দিন জানান, গত ২১ ডিসেম্বর দিবাগত রাতে হাসানের ছোট বোন শিলা আক্তার প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে বের হয়। এ সময় মাদকাসক্ত হাসান শিলাকে ধর্ষণের চেষ্টা করেন। পরে চিৎকার করলে তাদের বাবা-মা ঘর থেকে বেরিয়ে আসেন। হাসানকে ওই অবস্থায় দেখে ক্ষিপ্ত হন বাবা-মা।

এক পর্যায় হাসানকে মারতে মারতে ঘরের ভেতর নিয়ে যাওয়া হয়। পরে তাকে বালিশ চাপা দেন বাবা-মা। এ সময় শিলা তার যৌনাঙ্গ কেটে দিলে ঘটনাস্থলেই মারা যান হাসান। পরবর্তীতে তার লাশ ওই ডোবায় লুকিয়ে রাখা হয়।

পুলিশের এই কর্মকর্তা আরও জানান, নিহতের ছোট ভাই মো. হোসেনকে (১৮) জিজ্ঞাসাবাদ করলে ঘটনার মূল রহস্য জানা যায়। সে এ ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী। এছাড়া নিহতের ভাই হোসেন এই মামলার বাদী হয়েছেন। আটকদের রোববার আদালতে পাঠানো হবে।

উল্লেখ্য, গত শুক্রবার (৮ জানুয়ারি) বেলা ১১টার দিকে উপজেলার হোসেন্দী গ্রামের ডোবা থেকে হাসানের মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

error: Content is protected !!