ঢাকা ০১:৫৪ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই ২০২৪, ৩ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম :
Logo জবিতে আজীবন ছাত্ররাজনীতি নিষিদ্ধ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ Logo শাবিতে হল প্রশাসনকে ভয়-ভীতি দেখিয়ে নোটিসে জোর পূর্বক সাইন আদায় Logo এবার সামনে আসছে ছাত্রলীগ কর্তৃক আন্দোলনকারীদের মারধরের আরো ঘটনা Logo আবাসিক হল ছাড়ছে শাবি শিক্ষার্থীরা Logo নিরাপত্তার স্বার্থে শাবি শিক্ষার্থীদের আইডিকার্ড সাথে রাখার আহবান বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের Logo জনস্বাস্থ্যের প্রধান সাধুর যত অসাধু কর্ম: দুর্নীতি ও অর্থ পাচারের অভিযোগ! Logo বিআইডব্লিউটিএ বন্দর শাখা যুগ্ম পরিচালক আলমগীরের দুর্নীতি ও ঘুষ বাণিজ্য  Logo রাজশাহীতে এটিএন বাংলার সাংবাদিক সুজাউদ্দিন ছোটনকে হয়রানিমূলক মামলায় বএিমইউজরে নিন্দা ও প্রতিবাদ Logo শিক্ষার্থীদের তথ্য প্রযুক্তিতে দক্ষ হয়ে স্মার্ট বাংলাদেশ গড়ায় অবদান রাখতে হবেঃ ড. তৌফিক রহমান চৌধুরী Logo ‘কানামাছি শিশুসাহিত্য পুরস্কার ২০২৪’ পেলেন লেখক




গুইমারায় মহান বিজয় দিবস পালিত

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ১০:১৮:৩০ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৬ ডিসেম্বর ২০১৮ ১২৫ বার পড়া হয়েছে

 

আবুল হোসেন রিপন, খাগড়াছড়ি: প্রত্যুষে একত্রিশবার তোপধ্বনি ও গুইমারা মডেল উচ্চবিদ্যালয় শহীদ মিনারে “মহান মুক্তিযুদ্ধে যাদের আত্মত্যাগের বিনিময়ে আমাদের আজকের বিজয়” পুস্পস্তবক অর্পনের মধ্য দিয়ে গুইমারায় বিজয় দিবস পালনের বিভিন্ন কর্মসূচির সূচনা করা হয়।

সকাল সাতটায় শহীদ মিনারে পুস্পস্তবক অর্পন করেন গুইমারা উপজেলা প্রশাসন, গুইমারা মুক্তিযোদ্ধা পরিষদ, গুইমারা উপজেলা আওয়ামিলীগ ও তার সহযোগী অঙ্গসংগঠন, গুইমারার সকল সাংবাদিকবৃন্দ, পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড, গুইমারা উপজেলা বিএনপি ও তার সকল অঙ্গসংগঠন শহীদ মিনারে পুস্পস্তবক অর্পন করেন।

 

সকাল নয়টায় গুইমারা মডেল সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের মাঠে আনুষ্ঠানিকভাবে জাতীয় সঙ্গীতের সাথে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করেন গুইমারা উপজেলা নির্বাহি কর্মকর্তা পঙ্কজ বড়ুয়া, এবং গুইমারা থানার অফিসার ইনচার্জ বিদ্যুৎ কুমার বড়ুয়া। তারপর পুলিশ, আনসার, বিডিপি, ও বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, এবং সামাজিক প্রতিষ্ঠানের সমন্বয়ে কুচকাওয়াজ ও শরীরচর্চা প্রদর্শনী করা হয়।

সকাল সাড়ে নয়টায় শান্তির প্রতিক পায়রা উড়িয়ে বক্তব্য প্রদান করেন অনুষ্ঠানের সভাপতি গুইমারা উপজেলা নির্বাহি কর্মকর্তা পঙ্কজ বড়ুয়া। তিনি তার বক্তব্যে বলেন, ১৬ ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবস আমাদের জাতীয় জীবনের এক অবিস্মরণীয় দিন। দীর্ঘ নয় মাসের রক্তক্ষয়ী যুদ্ধের পর ১৯৭১ সালের এই দিনে বিশ্ব মানচিত্রে অভ্যুদয় ঘটে স্বাধীন ও সার্বভৌম বাংলাদেশের। এই দিনে সশ্রদ্ধ চিত্তে স্মরন করছি বীর মুক্তিযোদ্ধা সহ হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙ্গালির জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে। তিনি আরও বলেন, বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে। তার ধারাবাহিক প্রমান আমাদের বৃহ প্রকল্প পদ্মা সেতু। আগামিতে ও আমরা ঐক্যবদ্ধ থাকলে সকল ধরনের চেলেঞ্জ মোকাবিলা করতে পারবো।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার ম্রাসাথোয়াই মঘ, ১ নং গুইমারা ইউপি চেয়ারম্যান মেমং মারমা, ২নং হাফছড়ি ইউপি চেয়ারম্যান চাইথোয়াই চৌধুরি, ৩ নং সিন্দুকছড়ি ইউপি চেয়ারম্যান রেদাক মার্মা, গুইমারা উপজেলা আওয়ামিলীগ সভাপতি জাহাঙ্গীর আলম, গুইমারা কলেজের অধ্যক্ষ মো: নাজিমুদ্দিন, গুইমারা মডেল সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শুশিল রঞ্জন পাল, সাংবাদিক, গুইমারা বাজারের ব্যাবসায়ীসহ গুইমারার সর্বস্তরের জনগন।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :




গুইমারায় মহান বিজয় দিবস পালিত

আপডেট সময় : ১০:১৮:৩০ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৬ ডিসেম্বর ২০১৮

 

আবুল হোসেন রিপন, খাগড়াছড়ি: প্রত্যুষে একত্রিশবার তোপধ্বনি ও গুইমারা মডেল উচ্চবিদ্যালয় শহীদ মিনারে “মহান মুক্তিযুদ্ধে যাদের আত্মত্যাগের বিনিময়ে আমাদের আজকের বিজয়” পুস্পস্তবক অর্পনের মধ্য দিয়ে গুইমারায় বিজয় দিবস পালনের বিভিন্ন কর্মসূচির সূচনা করা হয়।

সকাল সাতটায় শহীদ মিনারে পুস্পস্তবক অর্পন করেন গুইমারা উপজেলা প্রশাসন, গুইমারা মুক্তিযোদ্ধা পরিষদ, গুইমারা উপজেলা আওয়ামিলীগ ও তার সহযোগী অঙ্গসংগঠন, গুইমারার সকল সাংবাদিকবৃন্দ, পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড, গুইমারা উপজেলা বিএনপি ও তার সকল অঙ্গসংগঠন শহীদ মিনারে পুস্পস্তবক অর্পন করেন।

 

সকাল নয়টায় গুইমারা মডেল সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের মাঠে আনুষ্ঠানিকভাবে জাতীয় সঙ্গীতের সাথে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করেন গুইমারা উপজেলা নির্বাহি কর্মকর্তা পঙ্কজ বড়ুয়া, এবং গুইমারা থানার অফিসার ইনচার্জ বিদ্যুৎ কুমার বড়ুয়া। তারপর পুলিশ, আনসার, বিডিপি, ও বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, এবং সামাজিক প্রতিষ্ঠানের সমন্বয়ে কুচকাওয়াজ ও শরীরচর্চা প্রদর্শনী করা হয়।

সকাল সাড়ে নয়টায় শান্তির প্রতিক পায়রা উড়িয়ে বক্তব্য প্রদান করেন অনুষ্ঠানের সভাপতি গুইমারা উপজেলা নির্বাহি কর্মকর্তা পঙ্কজ বড়ুয়া। তিনি তার বক্তব্যে বলেন, ১৬ ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবস আমাদের জাতীয় জীবনের এক অবিস্মরণীয় দিন। দীর্ঘ নয় মাসের রক্তক্ষয়ী যুদ্ধের পর ১৯৭১ সালের এই দিনে বিশ্ব মানচিত্রে অভ্যুদয় ঘটে স্বাধীন ও সার্বভৌম বাংলাদেশের। এই দিনে সশ্রদ্ধ চিত্তে স্মরন করছি বীর মুক্তিযোদ্ধা সহ হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙ্গালির জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে। তিনি আরও বলেন, বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে। তার ধারাবাহিক প্রমান আমাদের বৃহ প্রকল্প পদ্মা সেতু। আগামিতে ও আমরা ঐক্যবদ্ধ থাকলে সকল ধরনের চেলেঞ্জ মোকাবিলা করতে পারবো।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার ম্রাসাথোয়াই মঘ, ১ নং গুইমারা ইউপি চেয়ারম্যান মেমং মারমা, ২নং হাফছড়ি ইউপি চেয়ারম্যান চাইথোয়াই চৌধুরি, ৩ নং সিন্দুকছড়ি ইউপি চেয়ারম্যান রেদাক মার্মা, গুইমারা উপজেলা আওয়ামিলীগ সভাপতি জাহাঙ্গীর আলম, গুইমারা কলেজের অধ্যক্ষ মো: নাজিমুদ্দিন, গুইমারা মডেল সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শুশিল রঞ্জন পাল, সাংবাদিক, গুইমারা বাজারের ব্যাবসায়ীসহ গুইমারার সর্বস্তরের জনগন।