ঢাকা ০১:৪২ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর ২০২২, ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম :
Logo ডেমরায় পুলিশ কর্মকর্তার বাসা থেকে কিশোরী গৃহ পরিচারিকার লাশ উদ্ধার Logo ইমেজ ক্লিন করতে গুগল ক্লিন মিশনে চট্টগ্রামের শীর্ষ সন্ত্রাসী বাবর Logo চেয়ারে বসার আগেই গণপূর্ত নিয়ন্ত্রণে আশরাফুল: রয়েছে তারেক জিয়ার সঙ্গে ঘনিষ্ঠতা! Logo রাজধানীতে মাদকবিরোধী অভিযানে ৭১ জন গ্রেফতার Logo ১০ হাজার পিস ইয়াবাসহ পল্টন থানা পুলিশের হাতে মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার Logo দক্ষিণখান থানায় নতুন ওসি Logo চট্টগ্রামের মোস্ট ওয়ান্টেড বাবর আওয়ামী লীগের বড় পদ পেতে মরিয়া Logo জনগণকে বিনামূল্যে করোনা টিকা দিয়েছে সরকার: প্রধানমন্ত্রী Logo আইনজীবী মিতুকে হত্যা করা হয়েছে বলে সহপাঠীদের দাবি  Logo বসুন্ধরা গ্রুপের নাম ভাঙ্গিয়ে ত্রাসের সম্রাট আন্ডা রফিক




কমলগঞ্জে সুজনের আয়োজনে জনগণের মুখোমুখি ৩ প্রার্থীরা

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৪:১২:৫৫ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৮ ১৭ বার পড়া হয়েছে

 

 

 

কমলগঞ্জ(মৌলভীবাজার)প্রতিনিধি : ‘অবাধ, নিরপেক্ষ ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচন চাই’ এই শ্লোগানে জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নেয়া সংসদ সদস্য প্রার্থীরা জনগনের মুখোমুখি অনুষ্ঠানে অংশ নিয়েছে।

মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে জনগনের মুখোমুখি অনুষ্ঠান করেছে সুশাসনের জন্য নাগরিক (সুজন)।
বৃহস্পতিবার (১৩ ডিসেম্বর) নির্বাচনকে সামনে রেখে দেশব্যাপী এমন অনুষ্ঠানের অংশ হিসেবে মৌলভীবাজার ৪ (কমলগঞ্জ-শ্রীমঙ্গল) আসনে প্রতিদ্ধন্ধিতাকারী প্রার্থীগণকে নিয়ে এই জনগনের মুখোমুখি অনুষ্ঠান করা হয়।

সুজনের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক ও অনুষ্ঠানের প্রধান সঞ্চালক ড. বদিউল আলম মজুমদারের সঞ্চালনায় এবং সুজন কমলগঞ্জ উপজেলা কমিটির সভাপতি নিহারেন্দ্রু ভট্টাচার্য্যের সভাপতিত্বে প্রার্থীদের মধ্যে অংশগ্রহণ করেন, মৌলভীবাজার-৪ (কমলগঞ্জ-শ্রীমঙ্গল) আসনে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী উপাধ্যক্ষ ড. মো. আব্দুস শহীদ এমপি, ঐক্যফ্রন্ট মনোনীত প্রার্থী মুজিবুর রহমান চৌধুরী, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ দলীয় প্রার্থী মোহাম্মদ সালাহউদ্দিন। তবে অংশ নেননি এই আসনের গণফোরামের প্রার্থী শান্তিপদ ঘোষ।

অনুষ্ঠান চলাকালে প্রশ্নোত্তর পর্বে কমলগঞ্জ উপজেলার বিভিন্ন রাজনৈতিক নেতারা ও গনমাধ্যমকর্মী সহ সুশিল সমাজ, ছাত্র, শিক্ষক ও বিভিন্ন শ্রেনীপেশার মানুষজনের উপস্থিতিতে শিক্ষিত যুবকদের জন্য কর্মসংস্থান, নৃ-জনগোষ্ঠী ও চা শ্রমিকদের জীবনমান উন্নয়ন, শিক্ষার উন্নয়ন, নির্বাচনে লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড আছে কি না, জনগণ নির্বিঘ্নে ভোট দিতে পারবে কি না ইত্যাদি প্রশ্ন প্রার্থীদের উদ্দেশ্যে তুলে ধরেন।

অনুষ্ঠানের পরিশেষে সুজন সম্পাদক ড. বদিউল আলম মজুমদার উপস্থিত সবাইকে দুর্নীতিবাজ, কালো টাকার মালিক, সন্ত্রাসী, চাঁদাবাজ, যুদ্ধাপরাধী, সাম্প্রদায়িক ব্যক্তিকে ভোট না দিতে শপথবাক্য পাঠ করান।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :




কমলগঞ্জে সুজনের আয়োজনে জনগণের মুখোমুখি ৩ প্রার্থীরা

আপডেট সময় : ০৪:১২:৫৫ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৮

 

 

 

কমলগঞ্জ(মৌলভীবাজার)প্রতিনিধি : ‘অবাধ, নিরপেক্ষ ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচন চাই’ এই শ্লোগানে জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নেয়া সংসদ সদস্য প্রার্থীরা জনগনের মুখোমুখি অনুষ্ঠানে অংশ নিয়েছে।

মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে জনগনের মুখোমুখি অনুষ্ঠান করেছে সুশাসনের জন্য নাগরিক (সুজন)।
বৃহস্পতিবার (১৩ ডিসেম্বর) নির্বাচনকে সামনে রেখে দেশব্যাপী এমন অনুষ্ঠানের অংশ হিসেবে মৌলভীবাজার ৪ (কমলগঞ্জ-শ্রীমঙ্গল) আসনে প্রতিদ্ধন্ধিতাকারী প্রার্থীগণকে নিয়ে এই জনগনের মুখোমুখি অনুষ্ঠান করা হয়।

সুজনের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক ও অনুষ্ঠানের প্রধান সঞ্চালক ড. বদিউল আলম মজুমদারের সঞ্চালনায় এবং সুজন কমলগঞ্জ উপজেলা কমিটির সভাপতি নিহারেন্দ্রু ভট্টাচার্য্যের সভাপতিত্বে প্রার্থীদের মধ্যে অংশগ্রহণ করেন, মৌলভীবাজার-৪ (কমলগঞ্জ-শ্রীমঙ্গল) আসনে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী উপাধ্যক্ষ ড. মো. আব্দুস শহীদ এমপি, ঐক্যফ্রন্ট মনোনীত প্রার্থী মুজিবুর রহমান চৌধুরী, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ দলীয় প্রার্থী মোহাম্মদ সালাহউদ্দিন। তবে অংশ নেননি এই আসনের গণফোরামের প্রার্থী শান্তিপদ ঘোষ।

অনুষ্ঠান চলাকালে প্রশ্নোত্তর পর্বে কমলগঞ্জ উপজেলার বিভিন্ন রাজনৈতিক নেতারা ও গনমাধ্যমকর্মী সহ সুশিল সমাজ, ছাত্র, শিক্ষক ও বিভিন্ন শ্রেনীপেশার মানুষজনের উপস্থিতিতে শিক্ষিত যুবকদের জন্য কর্মসংস্থান, নৃ-জনগোষ্ঠী ও চা শ্রমিকদের জীবনমান উন্নয়ন, শিক্ষার উন্নয়ন, নির্বাচনে লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড আছে কি না, জনগণ নির্বিঘ্নে ভোট দিতে পারবে কি না ইত্যাদি প্রশ্ন প্রার্থীদের উদ্দেশ্যে তুলে ধরেন।

অনুষ্ঠানের পরিশেষে সুজন সম্পাদক ড. বদিউল আলম মজুমদার উপস্থিত সবাইকে দুর্নীতিবাজ, কালো টাকার মালিক, সন্ত্রাসী, চাঁদাবাজ, যুদ্ধাপরাধী, সাম্প্রদায়িক ব্যক্তিকে ভোট না দিতে শপথবাক্য পাঠ করান।