ঢাকা ০৫:২৯ অপরাহ্ন, রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ২৩ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম :
Logo চেয়ারম্যানের আহ্লাদে বেপরোয়া বিআইডব্লিউটিএ‘র কর্মচারি পান্না বিশ্বাস! Logo রাজউকে বদলী ও পদায়নে ভয়ংকর দুর্নীতি ফাঁস: নেপথ্য নায়ক প্রধান প্রকৌশলী  Logo কুবির শেখ হাসিনা হলের গ্যাস লিক, আতঙ্কে শিক্ষার্থীরা Logo ইন্টার্ন চিকিৎসকের হাত-পা ভেঙে দিলেন সহকর্মীরা Logo ঐতিহ্যবাহী শহীদ সোহরাওয়ার্দী কলেজে অফিসার্স কাউন্সিল নির্বাচন অনুষ্ঠিত  Logo একজন মমতাময়ী মায়ের উদাহরণ শাবির প্রাধ্যক্ষ জোবেদা কনক Logo বাংলা বিভাগের নতুন চেয়ারম্যান ড. শামসুজ্জামান মিলকী Logo মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটি শিক্ষার্থীদের দক্ষ জনশক্তি ও উদ্যোক্তা তৈরীতে ভূমিকা রাখবেঃ ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মোহাম্মদ জহিরুল হক  Logo কুবিতে প্রক্টরের সামনে সহকারী প্রক্টরকে মারতে তেড়ে গেলেন ২ নেতা Logo দুবাই ভিক্তিক প্রতারণার জাল বুনছেন এমএলএম প্রতারক আনজাম আরিফ!




বন্ধ হলো আরও এক প্রেক্ষাগৃহ

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০১:৩২:৫৫ অপরাহ্ন, বুধবার, ১২ ডিসেম্বর ২০১৮ ৪০ বার পড়া হয়েছে

 

বিনোদন ডেস্ক: জামালপুর জেলা সদরে চালু থাকা একমাত্র সিনেমা হল ‘মনোয়ার’ বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। গত ২ ডিসেম্বর থেকে এটি সাময়িক সময়ের জন্য বন্ধ করে দিয়েছেন মালিক পক্ষ। হলটিতে সর্বশেষ প্রদর্শিত হয়েছিল কলকাতার ছবি ‘ভিলেন’। ওই ছবিটি দুই দিন চালানোর পরই হলটি বন্ধ করে দেয়া হয়।

এর আগে ক্রমাগত লোকসান দেয়ায় শহরের কথাকলি, নিরালা ও সুরভী সিনেমা হল বন্ধ করে দিয়েছেন মালিক পক্ষ।

জানা গেছে মনোয়ার হলের মালিক ছিলেন লেবু মল্লিক নামে এক ব্যক্তি। ৮ বছর আগে তিনি মারা গেছেন। এরপর স্ত্রী বিউটি বেগম দুই বছর আগে তার দুই ভাই আলমগীর ও জাহাঙ্গীরকে হল পরিচালনার দায়িত্ব দেন। তারাই এখন হলটি চালাচ্ছেন।

এদিকে হল বন্ধ করে দেয়া প্রসঙ্গে মো. আলমগীর হোসেন গণমাধ্যমকে বলেন, এখন সিনেমার ব্যবসা নেই, গত কয়েক বছর ধরেই ক্রমাগত লোকসান দিচ্ছি। কিছুদিন আগে যৌথ প্রযোজনার সিনেমা নির্মিত হওয়ায় তখন কিছু ব্যবসা করেছিলাম। এখন আবার ভালো সিনেমার সংকট। তাই আবার লোকসান দিয়ে চালাতে হচ্ছিল। ব্যবসা না হলেও প্রতি সপ্তাহে হলের মেশিন ভাড়া ঠিকই দিতে হয়। এভাবে দীর্ঘদিন লোকসান দিয়ে হল চালানো সম্ভব নয়। তাই হল বন্ধ করে দিতে চেয়েছিলাম। ভেবেছিলাম অ্যাপার্টমেন্ট করে ভাড়া দেব। কিন্তু হল বন্ধের ঘোষণায় চারদিক থেকে ফোন আসা শুরু হয়েছে। বিনোদনের মাধ্যমটি বন্ধ হোক তা চাইছেন না অনেকেই। উপজেলা নির্বাহী অফিসার (টিএনও) সাহেবও ফোন দিয়ে হল বন্ধ না করার কথা বলেছেন। তাই নির্বাচনের আগ পর্যন্ত হল বন্ধ থাকবে। আশা করছি নির্বাচনের পর আবার চালু করব।

তিনি আরও জানান, বর্তমান স্থাপনা ভেঙে ভবিষ্যতে সেখানে অ্যাপার্টমেন্টের পাশাপাশি নতুন করে সিনেমা হল নির্মাণের পরিকল্পনা রয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :




বন্ধ হলো আরও এক প্রেক্ষাগৃহ

আপডেট সময় : ০১:৩২:৫৫ অপরাহ্ন, বুধবার, ১২ ডিসেম্বর ২০১৮

 

বিনোদন ডেস্ক: জামালপুর জেলা সদরে চালু থাকা একমাত্র সিনেমা হল ‘মনোয়ার’ বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। গত ২ ডিসেম্বর থেকে এটি সাময়িক সময়ের জন্য বন্ধ করে দিয়েছেন মালিক পক্ষ। হলটিতে সর্বশেষ প্রদর্শিত হয়েছিল কলকাতার ছবি ‘ভিলেন’। ওই ছবিটি দুই দিন চালানোর পরই হলটি বন্ধ করে দেয়া হয়।

এর আগে ক্রমাগত লোকসান দেয়ায় শহরের কথাকলি, নিরালা ও সুরভী সিনেমা হল বন্ধ করে দিয়েছেন মালিক পক্ষ।

জানা গেছে মনোয়ার হলের মালিক ছিলেন লেবু মল্লিক নামে এক ব্যক্তি। ৮ বছর আগে তিনি মারা গেছেন। এরপর স্ত্রী বিউটি বেগম দুই বছর আগে তার দুই ভাই আলমগীর ও জাহাঙ্গীরকে হল পরিচালনার দায়িত্ব দেন। তারাই এখন হলটি চালাচ্ছেন।

এদিকে হল বন্ধ করে দেয়া প্রসঙ্গে মো. আলমগীর হোসেন গণমাধ্যমকে বলেন, এখন সিনেমার ব্যবসা নেই, গত কয়েক বছর ধরেই ক্রমাগত লোকসান দিচ্ছি। কিছুদিন আগে যৌথ প্রযোজনার সিনেমা নির্মিত হওয়ায় তখন কিছু ব্যবসা করেছিলাম। এখন আবার ভালো সিনেমার সংকট। তাই আবার লোকসান দিয়ে চালাতে হচ্ছিল। ব্যবসা না হলেও প্রতি সপ্তাহে হলের মেশিন ভাড়া ঠিকই দিতে হয়। এভাবে দীর্ঘদিন লোকসান দিয়ে হল চালানো সম্ভব নয়। তাই হল বন্ধ করে দিতে চেয়েছিলাম। ভেবেছিলাম অ্যাপার্টমেন্ট করে ভাড়া দেব। কিন্তু হল বন্ধের ঘোষণায় চারদিক থেকে ফোন আসা শুরু হয়েছে। বিনোদনের মাধ্যমটি বন্ধ হোক তা চাইছেন না অনেকেই। উপজেলা নির্বাহী অফিসার (টিএনও) সাহেবও ফোন দিয়ে হল বন্ধ না করার কথা বলেছেন। তাই নির্বাচনের আগ পর্যন্ত হল বন্ধ থাকবে। আশা করছি নির্বাচনের পর আবার চালু করব।

তিনি আরও জানান, বর্তমান স্থাপনা ভেঙে ভবিষ্যতে সেখানে অ্যাপার্টমেন্টের পাশাপাশি নতুন করে সিনেমা হল নির্মাণের পরিকল্পনা রয়েছে।