বাংলা নববর্ষ ডিজিটালি উদযাপন করবে ছায়ানট

সকালের সংবাদ ডেস্ক;সকালের সংবাদ ডেস্ক;
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ১১:০৬ পূর্বাহ্ণ, ১২ এপ্রিল ২০২০

অনলাইন রিপোর্টঃ
পহেলা বৈশাখের সব অনুষ্ঠান বাতিল হলেও ভিন্ন আঙ্গিকে বর্ষবরণের অনুষ্ঠান করতে যাচ্ছে ছায়ানট। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার বক্তৃতায় ‘ডিজিটাল স্বাগত জানান’ এ প্রস্তাবকে অনুসরণ করেই ছায়ানট এ অনুষ্ঠান করতে যাচ্ছে।

শনিবার (১১ এপ্রিল) ছায়ানট সভাপতি সানজিদা খাতুন স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এসব কথা জানানো হয়। এতে সানজিদা খাতুন বলেন, ‘মানুষের নিরাপত্তার স্বার্থে জনসমাবেশ ঘটিয়ে বাংলা বর্ষবরণ অনুষ্ঠান আয়োজন না করার সময়োচিত সিদ্ধান্ত নিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আপন সত্তার অহংকার, নববর্ষকে ডিজিটালি স্বাগত জানানোর আহ্বান তার প্রতিকূলতার কাছে নতি স্বীকার না করার অটল মনোভাবেরই বহিঃপ্রকাশ। বর্তমান মহামারিতে বিশ্ব জুড়ে অগণ্য মানুষের জীবনাবসান ও জীবন শঙ্কার ক্রান্তিলগ্নে ছায়ানট তাই ‘উত্সব নয়, সময় এখন দুর্যোগ প্রতিরোধের’—এই অঙ্গীকার নিয়ে সীমিত আকারের উদ্যোগ নিয়েছে।’

এ প্রসঙ্গে ছায়ানটের নির্বাহী সভাপতি ডা. সারওয়ার আলী বলেন, ‘গত তিন বছর ছায়ানট যে অনুষ্ঠান করেছে তা বিটিভির কাছে ধারণ করা আছে। সেখান থেকে নির্বাচিত গান নিয়ে এক ঘণ্টার অনুষ্ঠান সাজানো হবে। তবে ছায়ানট সভাপতির ভাষণটি ধারণ করে তা সম্প্রচার করা হবে এ অনুষ্ঠানে।’

প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, ছায়ানটের অনুষ্ঠানটি বাংলাদেশ টেলিভিশন সম্প্রচার করবে। এবারের অনুষ্ঠান সাজানো হয়েছে, বর্ষবরণের নির্বাচিত গান এবং বর্তমান সংকটের প্রেক্ষাপটে ছায়ানট সভাপতি সন্জীদা খাতুনের সমাপনী কথন দিয়ে। অনুষ্ঠান শুরু হবে সকাল ৭টায়। এছাড়া, ছায়ানটের কয়েকটি অনলাইন প্ল্যাটফরমেও সরাসরি সম্প্রচার করা হবে নববর্ষের অনুষ্ঠান। এছাড়া, চাইলে অন্যান্য বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেলগুলো বিটিভির এ অনুষ্ঠান সম্প্রচার করতে পারবে।

আপনার মতামত লিখুন :